• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯, ৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
প্রকাশিত: নভেম্বর ৭, ২০১৯, ০৬:৫৩ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : নভেম্বর ৭, ২০১৯, ০৬:৫৮ পিএম

প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের উন্নয়নে অগ্রগতি পরিলক্ষিত হচ্ছে না

জাগরণ প্রতিবেদক
প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের উন্নয়নে অগ্রগতি পরিলক্ষিত হচ্ছে না
জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আলোচকরা -ছবি : জাগরণ

দেশে মোট বাজেটের মাত্র ০.২১ ভাগ প্রতিবন্ধী খাতে বরাদ্দ। টেকসই উন্নয়ন অভীষ্টে প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের বিষয়ে সুস্পষ্টভাবে উল্লেখ থাকলেও এর বাস্তবায়নে তেমন কোনো অগ্রগতি পরিলক্ষিত হচ্ছে না।

বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে ‘টেকসই উন্নয়ন অভীষ্টের প্রতিবন্ধিতা বিষয়ক লক্ষ্য ও সূচক বাস্তবায়নে গণমাধ্যমের ভূমিকা’ শীর্ষক একটি আলোচনা অনুষ্ঠানে আলোচকরা এসব কথা বলেন।

প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের উন্নয়নে কর্মরত সংস্থা অ্যাকসেস বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন আরও ৫টি প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের সংগঠন ডিজএ্যাবল্ড চাইল্ড ফাউন্ডেশন, প্রতিবন্ধী নারীদের জাতীয় পরিষদ, সীতাকুণ্ড ফেডারেশন, টার্নিং পয়েন্ট ফাউন্ডেশন এবং উইমেন উইথ ডিজঅ্যাবিলিটিজ ডেভেলপমেন্ট ফাউন্ডেশন যৌথভাবে এটি আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিন। অ্যাকসেস বাংলাদেশ ফাউন্ডেশনের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও নির্বাহী পরিচালক আলবার্ট মোল্লা মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন। এতে সভাপতিত্ব করেন চেয়ারপারসন সি এম তোফায়েল সামি।

অনুষ্ঠানে ফরিদা ইয়াসমিন বলেন, সাংবাদিকদের প্রতিবন্ধিতা বিষয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হলে বিষয়টি গুরুত্ব পাবে। তিনি জাতীয় প্রেস ক্লাবে র‌্যাম্প করে দিবেন বলে প্রতিশ্রুতি দেন।

এদিকে জাতিসংঘ প্রতিবন্ধী ব্যক্তির অধিকার সনদ বিষয়ক কমিটি, ‘প্রতিবন্ধিতা বিষয়ক সংবাদ প্রকাশের জন্য প্রতিবন্ধিতা সাংবাদিক ফোরাম’ গঠনের প্রস্তাব দেয়া হয়। এটিএন বাংলার প্রধান নির্বাহী সম্পাদক জ ই মামুন ‘প্রতিবন্ধিতা সাংবাদিক ফোরাম’ গঠনের গুরুত্বের উপর বক্তব্য রাখেন।

প্রবন্ধে আলবার্ট মোল্লা বলেন, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের উন্নয়ন বিষয়ে তেমন কোনো অগ্রগতি পরিলক্ষিত না হওয়ার পিছে প্রতিবন্ধকতা হলো- প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের অনির্ভরযোগ্য তথ্য যা টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট বাস্তবায়ন অগ্রগতি মনিটরিং সম্ভব নয়। ২৪১টি সূচকের মধ্যে বর্তমানে ১০৮টি তথ্য আংশিক উপস্থিত এবং ৬৩টি তথ্য অনুপস্থিত, জাতীয় ৭ম পঞ্চ-বার্ষিক কর্ম পরিকল্পনায় শিক্ষা ব্যতিত অন্যান্য অগ্রাধিকার যেমন - কর্মসংস্থান ও স্বাস্থ্যসহ অন্যান্য অগ্রাধিকারে প্রতিবন্ধিতা সূচকসমূহ অনুপস্থিত, মন্ত্রণালয়গুলোর মধ্যে সমন্বয়হীনতা, বাজেটে অপর্যাপ্ততা। 

প্রবন্ধে তিনি বলেন, বিশ্লেষণধর্মী সংবাদ প্রকাশ, টেকসই উন্নয়ন অভিষ্ট সম্পর্কিত সচেতনতামূলক অনুষ্ঠান নির্মাণ যেমন- টেলিভিশন টক-শো, সচেতনতামূলক বিজ্ঞাপন ইত্যাদি, সচেতনতা বৃদ্ধিতে যুবসমাজকে ব্যবহার, স্বচ্ছতা এবং জবাবদিহিতা নিশ্চিতকরণ, ইত্যাদি বিষয়ে অবদান রাখতে পারে।

অনুষ্ঠানে আশরাফুন নাহার মিস্টিকে লাইট ফর দ্য ওয়াল্ডের আয়োজনে প্রতিবন্ধী নারী একটিভিস্টদের মধ্য হতে রাইটস ক্যাটাগরিতে হার অ্যাবিলিটিস অ্যাওয়ার্ড এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইসিটি জ্ঞানের মাধ্যমে প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে অসাধারণ অবদান রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ ভাস্কর ভট্টাচার্য ইউনেস্কো থেকে ইউনেস্কো পুরস্কার পাওয়ায় সংবর্ধনা জানানো হয়। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন, সহ-প্রতিষ্ঠাতা মহুয়া পাল।

টিএস/একেএস