• ঢাকা
  • শনিবার, ২৫ মে, ২০১৯, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬
Bongosoft Ltd.
প্রকাশিত: মে ১৫, ২০১৯, ১০:১২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : মে ১৫, ২০১৯, ১০:১২ পিএম

রাঙ্গাবালীতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ

পটুয়াখালী সংবাদদাতা
রাঙ্গাবালীতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ

পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক কিশোরীকে (১৪) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে তার প্রেমিক শাহিন হাওলাদারের (২২) বিরুদ্ধে। ওই কিশোরী বর্তমানে অন্তঃসত্ত্বা। এ ঘটনায় কিশোরীর পিতা বাদী হয়ে পটুয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা দায়ের করেন। পরে আদালতের নির্দেশে বুধবার  (১৫ মে) সকাল ৯টার দিকে উপজেলার বড়বাইশদিয়া ইউনিয়নের মধুখালী এলাকা থেকে শাহিনকে গ্রেফতার করে রাঙ্গাবালী থানার পুলিশ।

শাহিন ওই এলাকার মো. বাবর হাওলাদারের ছেলে।

ধর্ষিতার পরিবার ও মামলার বিবরণ সূত্রে জানা গেছে, বছর দুয়েক আগে ওই কিশোরীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক হয় শাহিনের। এরই মধ্যে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ওই কিশোরীকে প্রায়ই ধর্ষণ করত শাহিন। একপর্যায়ে ধর্ষিতা অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে বিয়ে করতে অসম্মতি জানায় শাহিন। এতে বিপাকে পড়ে যায় ধর্ষিতা ও তার পরিবার। পরে ধর্ষিতার পিতা বাদী হয়ে পটুয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা দায়ের করেন। 

রাঙ্গাবালী থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আলী আহম্মেদ জানান, ধর্ষিতা বর্তমানে পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা। ধর্ষণের ঘটনায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে আদালতে মামলা হয়। মামলাটি থানায় এলে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। শাহিন প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে।

এনআই

Space for Advertisement