• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০১৯, ৮ কার্তিক ১৪২৬
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৯, ০৫:০৮ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৯, ০৫:০৮ পিএম

শিবপুরে চাঁদা না পেয়ে দুটি পুকুরে বিষ প্রয়োগ

নরসিংদী সংবাদদাতা
শিবপুরে চাঁদা না পেয়ে দুটি পুকুরে বিষ প্রয়োগ
দুর্বৃত্তরা পুকুরে বিষ প্রয়োগ করায় মরে ভেসে ওঠে মাছ  -  ছবি : জাগরণ

নরসিংদীর শিবপুরে ২ লাখ টাকা চাঁদা না পেয়ে দুটি পুকুরে বিষ প্রয়োগ করেছে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় প্রায় ১৫ লাখ টাকার মাছ মারা গেছে। শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে।

শিবপুর উপজেলার চক্রধা ইউনিয়নের বাড়ৈগাঁও গ্রামে দুটি পুকুর লিজ নিয়ে মাছ চাষ করে আসছেন একই গ্রামের দিগন্দ্র বর্মণের ছেলে মৎস্য ব্যবসায়ী রতন চন্দ্র বর্মণ।

জানা যায়, কিছুদিন আগে রতন চন্দ্র বর্মণের ভাইয়ের পুকুরে বিষ প্রয়োগ করে ৩ লাখ টাকার মাছ মেরে ফেলে দুর্বৃত্তরা। পরে রতন চন্দ্র বর্মণকে বিভিন্নভাবে হুমকি প্রদান করে ২ লাখ টাকা চাঁদা দেওয়ার জন্য। টাকা না দিলে তার পুকুরেও বিষ প্রয়োগ করা হবে বলে হুমকি দিয়ে আসছে দুর্বৃত্তরা। পরে টাকা দিতে রাজি হলে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে টাকা রেখে আসতে বললে পুলিশের সহযোগিতায় টাকা নিয়ে নির্দিষ্ট স্থানে রাখলে টাকা নিতে কেউ আসেনি।

এ রকম চলতে থাকলে শিবপুর সরকারি কলেজের প্রাক্তন প্রভাষক আহছান উল্লাহ উভয় পক্ষের মাঝে একটি সমন্বয় করে দেন যে রতন চন্দ্র বর্মণের পুকুরে বিষ প্রয়োগ করবে না। কিন্তু রোববার (২২ সেপ্টেম্বর) সকালে পুকুরে বিষ প্রয়োগের সংবাদ পেয়ে আহসান উল্লাহ দেখতে এসে থানায় অভিযোগ করার পরামর্শ দিয়ে চলে গেছেন।

ক্ষতিগ্রস্ত মৎস্য ব্যবসায়ী রতন চন্দ্র বর্মণ বলেন, ‘ধারদেনা করে ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে করেছি পুকুরে। শনিবার রাতে পুকুর দুটিতে বিষ প্রয়োগ করলে সকালে সব মাছ মরে ভেসে ওঠে। এত বড় সর্বনাশ করছে আমার। এক মাস পর মাছগুলো বিক্রি করলে সব টাকা উঠে আসত।’ তিনি এ ঘটনায় শিবপুর মডেল থানায় একটি অভিযোগ করবেন বলেও জানিয়েছেন।

এনআই

আরও পড়ুন