• ঢাকা
  • বুধবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
প্রকাশিত: নভেম্বর ১৫, ২০১৯, ১০:৩৮ এএম
সর্বশেষ আপডেট : নভেম্বর ১৫, ২০১৯, ১০:৩৮ এএম

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মাদককারবারি নিহত

কক্সবাজার সংবাদদাতা 
টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মাদককারবারি নিহত

কক্সবাজারের টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যদের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নুর কবীর (২৮) নামে এক রোহিঙ্গা মাদককারবারি নিহত হয়েছেন। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় তৈরি বন্দুক, দুই রাউন্ড কার্তুজ, একলাখ ২০ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়েছে।

শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) ভোরে টেকনাফের লেদার ছ্যুরি খাল সংলগ্ন কেওড়া বাগানে এ ঘটনা ঘটে। নুর কবীর মিয়ানমারের নাগরিক মোলালেবের ছেলে।

টেকনাফ বিজিবি-২ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, ভোরে বিজিবির লেদা বিওপি’র সদস্যরা নিয়মিত টহল দিচ্ছিলেন। এ সময় ছ্যুরি খাল সংলগ্ন কেওড়া বাগানে মাটি খোঁড়ার শব্দ পেয়ে বিজিবি সদস্যরা এগিয়ে যান। এ সময় মাটিতে পুতে রাখা একটি বস্তা দেখতে পান বিজিবি সদস্যরা। বিজিবি সদস্যরা ওই স্থানে পৌঁছানো মাত্র মাদককারবারিরা বিজিবি সদস্যদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়তে শুরু করেন। আত্মরক্ষার্তে বিজিবি সদস্যরা পাল্টা গুলি ছোড়ে। এক পর্যায়ে বিজিবি সদস্যরা পিছু হটলে ঘটনাস্থল থেকে বস্তা ভর্তি এক লাখ ২০ হাজার পিস ইয়াবা, একটি দেশীয় তৈরি বন্দুক ও দুই রাউন্ড কার্তুজ এবং গুলিবিদ্ধ অবস্থায় নুর কবীর নামে ওই রোহিঙ্গা ইয়াবা কারবারিকে উদ্ধার করা হয়। গুলিবিদ্ধ নুর কবীরকে প্রথমে টেকনাফ হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি দেখে দ্রুত তাকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

বন্দুকযুদ্ধে বিজিবির দুই সদস্য আহত হয়েছেন এবং এ ঘটনায় টেকনাফ থানায় পৃথক মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান বিজিবি-২ এর অধিনায়ক ফয়সল।

বিএস