• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ০৭ জুলাই, ২০২০, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭
প্রকাশিত: জুন ৬, ২০২০, ০৩:৪৬ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জুন ৬, ২০২০, ০৩:৫১ পিএম

২২ সেকেন্ডের টর্নেডোতে লণ্ডভণ্ড নাসিরনগরসহ কয়েকটি গ্রাম

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সংবাদদাতা
২২ সেকেন্ডের টর্নেডোতে লণ্ডভণ্ড নাসিরনগরসহ কয়েকটি গ্রাম
সংগৃহীত ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলায় টর্নেডোর তাণ্ডবে শতাধিক ঘরবাড়ি, গাছপালা, নৌকা, ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ বিদ্যুতের খুঁটি ভেঙে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

শনিবার (৬ জুন) সকালে উপজেলার কয়েকটি গ্রামে আঘাত করে টর্নেডোটি। এ সময় উপজেলা সদরের পশ্চিমপাড়া, চেঙ্গাপুর, ডাকবাংলো, গাংকুলপাড়া, গৌর মন্দির, মহাখালপাড়া, বুড়িশ্বর ইউনিয়নের আশুরাইল, শ্রীঘর, হরিপুর ইউনিয়নের নরহা গ্রামসহ বিভিন্ন গ্রামে এটির তাণ্ডব চলে।

টর্নেডোর কবলে পড়ে আহত হয়েছেন ৪ জন। আহতদের উদ্ধার করে নাসিরনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। তবে কি পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা সুনির্দিষ্টভাবে জানাতে পারেনি কেউ।

টর্নেডোর সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন নাসিরনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমা আশরাফী। পাশাপাশি তিনি দুই ইউনিয়নের চেয়ারম্যানকে ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা করার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজমা আশরাফী বলেন, সকালে টর্নেডোটি উপজেলা সদর ইউনিয়ন ও হরিপুর ইউনিয়নে আঘাত করে। টর্নেডো স্বাভাবিকভাবে ২২ সেকেন্ড স্থায়ী হয়। এরই মধ্যে এটি সবকিছু লণ্ডভণ্ড করে দিয়েছে। উপজেলা সদরের পশ্চিমপাড়া, চেঙ্গাপুর, ডাকবাংলো, গাংকুলপাড়া, গৌর মন্দির, মহাখালপাড়া, বুড়িশ্বর ইউনিয়নের আশুরাইল, শ্রীঘর, হরিপুর ইউনিয়নের নরহা গ্রামসহ বিভিন্ন গ্রামে এটির তাণ্ডব চলে। চারজন আহত হওয়ার খবর আমরা পেয়েছি। তাদের হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, টর্নেডোর আঘাত করার সংবাদ পাওয়ার পর ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করে ঘরবাড়িসহ ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণের তালিকা করা হচ্ছে। তালিকা করার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে কি পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা পুরোপুরি না জেনে বলা যাচ্ছে না।

এসএমএম

আরও পড়ুন