• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন, ২০১৯, ১৪ আষাঢ় ১৪২৬
Bongosoft Ltd.
প্রকাশিত: জুন ১২, ২০১৯, ০৯:১৯ এএম
সর্বশেষ আপডেট : জুন ১২, ২০১৯, ০৯:২০ এএম

জাল দলিলপত্রে বিডিবিএলের ২৫ কোটি টাকা আত্মসাতে দুদকের মামলা

জাগরণ প্রতিবেদক
জাল দলিলপত্রে বিডিবিএলের ২৫ কোটি টাকা আত্মসাতে দুদকের মামলা


জাল দলিলপত্রের মাধ্যমে ২৫ কোটি ৫০ লাখ টাকা উত্তোলন ও আত্মসাতের অভিযোগে বাংলাদেশ ডেভেলমেন্ট ব্যাংক লিমিটেডের (বিডিবিএল) তিন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও ঢাকা ট্রেডিং হাউজের মালিক টিপু সুলতানের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

ঢাকা ট্রেডিং হাউজ আগের দিন বাংলাদেশ ডেভেলমেন্ট ব্যাংকে এলসি স্থাপন করার পরের দিনই ১৫ হাজার মেট্রিক টন গম বুঝে পাওয়ার অবিশ্বাস্য রেকর্ডপত্র তৈরি করে ওই অর্থ আত্মসাৎ হয়। 

গতকাল মঙ্গলবার রাতে রাজধানীর পল্টন থানায় দুদকের সহকারী পরিচালক গুলশান আনোয়ার প্রধান বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন বলে জানান দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য।

এই মামলার আসামিরা হলেন, ঢাকা ট্রেডিং হাউজের মালিক টিপু সুলতান, বিডিবিএলের এজিএম দেওয়ান মোহাম্মদ ইসহাক, অবসরপ্রাপ্ত জেনারেল ম্যানেজার সৈয়দ নুরুর রহমান কাদরী ও ব্যাংকটির সাবেক এসপিও দীনেশ চন্দ্র সাহা।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে ক্ষমতার অপব্যবহার করে ভুয়া ডকুমেন্ট কোনোরূপ যাচাই-বাছাই ছাড়া ঢাকা ট্রেডিং হাউজের মালিক টিপু সুলতানকে বিডিবিএল হতে ২৫ কোটি ৫০ লাখ টাকা উত্তোলনের সুযোগ করে দিয়েছেন। পরবর্তীকালে ওই গ্রাহক ওই টাকা আত্মসাৎ করেছেন।

এজাহারে আরো উল্লেখ করা হয়, জাল দলিলপত্র প্রকৃত বলে (খাঁটি) হিসেবে ব্যবহার করে ঋণটিকে সুকৌশলে অনুমোদন করে নেওয়া হয়েছে। ১৫ হাজার মেট্রিক টন পণ্য একদিনে একটি ট্রাকে পরিবহন দেখানো হয়েছে, যা কোনোভাবেই সম্ভব নয়। ওই এলটিআরের বিপরীতে কোনো টাকা পরিশোধ হয়নি এবং ঋণটি বর্তমানে শ্রেণিকৃত অবস্থায় আছে যার বিপরীতে মর্টগেজ একেবারেই অপ্রতুল এবং এটা পরিশোধ হওয়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।

এইচএম/আরআই

Space for Advertisement