• ঢাকা
  • রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৩১ ভাদ্র ১৪২৬
প্রকাশিত: জুন ১২, ২০১৯, ০৩:৩১ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জুন ১২, ২০১৯, ০৩:৪৯ পিএম

ভ্যাট আইন বাস্তবায়নে চাপে পড়বে সাধারণ মানুষ

আলী ইব্রাহিম
ভ্যাট আইন বাস্তবায়নে চাপে পড়বে সাধারণ মানুষ

সাধারণ বাস থেকে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বাস, আবাসিক হোটেল, রেস্তোরাসহ ট্যারিফ হারে ভ্যাট আরোপ হওয়াতে সাধারণ মানুষের উপর খরচের চাপ বাড়বে। প্রতিটি ক্ষেত্র গুনতে হবে অতিরিক্ত টাকা। সাধারণ ভোক্তার কাছ থেকে ভ্যাটের ১ লাখ ২৭ হাজার ৬৭১ কোটি টাকা আদায় হবে। এতে সব ধরণের ব্যয় বাড়বে। এনবিআর সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, এবারে বাজেটে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) এর লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৩ লাখ ২৫ হাজার ৬শ কোটি টাকা। এর মধ্যে ভ্যাট থেকে আদায় করা হবে ১ লাখ ১৭ হাজার ৬৭১ কোটি টাকা। যা ভোক্তাদের দিতে হবে। এতে সাধারণ মানুষের বিশেষ করে মধ্যবিত্ত ও নিম্ন মধ্যবিত্তের উপর বড় ধরণের চাপ তৈরি হবে। যদিও জাতীয় রাজস্ব বোর্ড বলছে সব দিক বিচার বিবেচনা করেই ভ্যাটের হার নির্ধারণ করা হয়েছে।

সূত্র আরও জানায়, ৩০ জুন বাজেট পাশ হবে। আর ১ জুলাই থেকে তা কার্যকর হবে। ভ্যাট আরোপ করা হয়েছে- আবাসিক হোটেল, রেস্তোরা ও ফাস্টফুড শপ, মিষ্টান্ন ভাণ্ডার, আসবাবপত্রের বিক্রয় কেন্দ্র, পোশাক বিক্রির কেন্দ্র ও বুটিক শপ, বিউটি পার্লার, ইলেকট্রনিক ও ইলেকট্রিক্যাল গৃহস্থালি সামগ্রীর বিক্রয় কেন্দ্র, কমিউনিটি সেন্টার, অভিজাত শপিং সেন্টারের অন্তর্ভুক্ত সব ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান, ডিপার্টমেন্টাল স্টোর, জেনারেল স্টোর ও সুপার শপ, বড় ও মাঝারি ব্যবসায়ী (পাইকারি ও খুচরা) প্রতিষ্ঠানে। এতে যে কোনো পণ্য ক্রয়ের সঙ্গে একজন ভোক্তাকে ভ্যাট পরিশোধ করতে হবে। ফলে বাড়বে জীবন যাত্রার ব্যয়।

ভ্যাট বাস্তবায়ন সংক্রান্ত জটিলতা নিয়ে কথা বিশ্ব ব্যাংকের বাংলাদেশ অফিসের প্রধান অর্থনীতিবিদ ড. জাহিদ হোসেনের সঙ্গে। তিনি দৈনিক জাগরণকে বলেন, ভ্যাট বাস্তবায়নের বিষয়টি পুরোপুরি ক্লিয়ার করা প্রয়োজন। আর কিভাবে ভ্যাট আদায় করা হবে তাও ব্যবসায়ীদের স্পস্ট করা প্রয়োজন। এদিকে গতকাল সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালত (সিপিডি) বাজেট বিষয়ে বেশকিছু সুপারিশ করেছে। তার মধ্যে অন্যতম ছিল কৃষি খাতে গুরুত্বের বিষয়টি। কিন্তু ভ্যাট বাস্তবায়নে এদের উপরও প্রভাব পড়বে। কারণ একজন কৃষকও একজন ভোক্তা।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, সরকারের সঙ্গে ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন নিয়ে আলোচনা হয়েছে। সরকার ভ্যাট আরোপের মাত্রা সহনীয় পর্যায়ে রাখবে। তবে ভ্যাট আইন বাস্তবায়নে এখনো পুরোপুরি প্রস্তুত নয় এনবিআর। গত কয়েক বছর ধরে ভ্যাট আইন বাস্তবায়নের প্রস্তুতি নিলেও অদ্যবদি ইফডি মেশিনের বিষয়ে কিছুই চূড়ান্ত হয়নি। এখনো ইফডি মেশিন আমদানির বিষয়টি অস্পস্ট। আমদানির বিষয়ে টেন্ডার করলে এখনো বৌবসায়ীদের মধ্যে ভ্যাট আদায় করার মেশিন পৌঁছায়নি।

এনবিআর কর্মকর্তারা বলছেন, ভ্যাট বাস্তবায়নে প্রস্তুত এনবিআর। আর সব ধরণের বিচার বিবেচনা করে এনবিআর ভ্যাটের হার চূড়ান্ত করেছে। তবে নতুন ভ্যাট আইন কার্যকর হলে মধ্যবিত্তের উপর কিছুটা চাপ বাড়বে বলে জানান তারা।

এআই/একেএস

Islami Bank