• ঢাকা
  • শনিবার, ০৭ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
প্রকাশিত: জুলাই ২৭, ২০১৯, ০৯:০১ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জুলাই ২৭, ২০১৯, ০৯:০১ পিএম

‘চাকরিতে আবেদনের বয়সসীমা ৩০ একটি হাস্যকর পলিসি’

ঢাবি প্রতিনিধি
‘চাকরিতে আবেদনের বয়সসীমা ৩০ একটি হাস্যকর পলিসি’
সাধারণ ছাত্রকল্যাণ পরিষদের সমাবেশ

‘সরকারি চাকরিতে আবেদনের বয়সসীমা ৩০ বছর একটি হাস্যকর পলিসি। বাংলাদেশের জনগণের গড় আয়ু ৪৭ বছর থেকে বৃদ্ধি পেয়ে বর্তমানে ৭২ বছরে উন্নীত হয়েছে। অথচ সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বৃদ্ধি না করে অবসরের বয়সসীমা দুই বছর বৃদ্ধি করেছে। যার ফলে বেকারত্বের হার আরও বৃদ্ধি পেয়েছে।’

শনিবার (২৭ জুলাই) দুপুরে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্রকল্যাণ পরিষদের ব্যানারে চাকরিতে আবেদনের বয়সসীমা ৩৫ করাসহ চারদফা দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা এসব কথা বলেন। 

সমাবেশে বক্তারা বলেন, একটি দেশকে এগিয়ে নিতে হলে আগে শিক্ষাকে এগিয়ে নিতে হবে। এজন্য শিক্ষার্থীদের চাওয়া-পাওয়া ও সুযোগ-সুবিধাগুলোকে প্রাধান্য দিতে হবে। শিক্ষার্থীদের ঠকিয়ে, জিম্মি কিংবা হয়রানি করে কখনোই দেশকে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়নের দারপ্রান্তে নেয়া সম্ভব নয়। বর্তমানে ছাত্র সমাজ একটি কালো চক্রের হাতে জিম্মি হয়ে আছে উল্লেখ করে তারা বলেন, এই কালো চক্র লাখ লাখ শিক্ষার্থীদের জীবনকে হতাশ করে দিচ্ছে। নিয়োগের নামে হাতিয়ে নিচ্ছে কোটি কোটি টাকা।
তাদের চার দফা দাবি হলো-  চাকরিতে আবেদনের বয়সসীমা বৃদ্ধি করে ৩৫ বছরে উন্নীত করতে হবে, অমানবিক আবেদন ফি কমিয়ে ৫০ থেকে ১০০ টাকার মধ্যে নির্ধারণ করতে হবে, নিয়োগ পরীক্ষাগুলো জেলা কিংবা বিভাগীয় পর্যায়ে নিতে হবে এবং তিন থেকে ছয় মাসের মধ্যে নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন ও সুনির্দিষ্ট নীতিমালা প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন করতে হবে।

সমাবেশে তাদের দাবিগুলো মেনে নিতে প্রধানমন্ত্রীর নিকট আহ্বান জানানো হয়।

এমআইআর/ বিএস