• ঢাকা
  • শনিবার, ১০ এপ্রিল, ২০২১, ২৭ চৈত্র ১৪২৭
প্রকাশিত: এপ্রিল ১৩, ২০১৯, ০৪:২৯ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : এপ্রিল ১৩, ২০১৯, ১০:৩৩ পিএম

আইসিডিডিআর,বি হাসপাতালে ১১ দিনে ৮ হাজার ৩৫১ রোগী

আইসিডিডিআর,বি হাসপাতালে ১১ দিনে ৮ হাজার ৩৫১ রোগী
আইসিডিডিআর,বি হাসপাতাল

১১দিনের একেক দিন গড়ে প্রায় ৭৬৩ জন ব্যক্তি ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়ে আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআর,বি) হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এই হিসাব গত ১ এপ্রিল থেকে গত ১১ এপ্রিল পর্যন্ত।

অত্যাধিক দাবদাহ, দূষিত পানি পান, খাদ্যেবিষক্রিয়ার প্রভাবে তারা ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে আইসিডিডিআর,বি জানিয়েছে।

প্রখ্যাত মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) মেডিসিন বিভাগের প্রাক্তন প্রধান অধ্যাপক এবিএম আবদুল্লাহ জাগরণকে জানান, এই ঋতুতে ডায়রিয়ার এমন প্রকোপ দেখা দিয়েই থাকে। তবে সচেতনতা বৃদ্ধি পেলে এই ঋতুতে এর প্রকোপ কমিয়ে আনা সম্ভব।

আইসিডিডিআর,বির হিসাব অনুযায়ী- ৮ হাজার ৩৫১ জন রোগী ভর্তি হয়েছেন ওই ১১দিনে। তারা ঢাকা মেট্রোপলিটন ও এর আশপাশ এলাকার বাসিন্দা। রোগীর মধ্যে ৫ বছরের কম বয়সী শিশুর হার গড়ে ৩০-৩৫ শতাংশ।

অধ্যাপক এবিএম আবদুল্লাহ বলেন, ডায়রিয়া তো মূলত পানিবাহিত রোগ। এজন্য বিশুদ্ধ পানি পানের অভ্যাস গড়ে তুলতে হবে। রাস্তাঘাটের দোকানপাটের জারের পানি, খোলা পানি পানের অভ্যাস পরিহার করা জরুরি। তাছাড়া রাস্তাঘাটের খোলা নানা ধরণের খাবার, অপরিচ্ছন্ন জীবনযাপন থেকেও ডায়রিয়া হয়ে যায়। এসব মেনে চললে ডায়রিয়া থেকে সুরক্ষিত থাকা ব্যাপার না।

আরএম/বিএস