• ঢাকা
  • রবিবার, ১১ এপ্রিল, ২০২১, ২৭ চৈত্র ১৪২৭
প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১, ০৩:১৫ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১, ০৩:২০ পিএম

হাঁটু ব্যথায় যা করবেন

হাঁটু ব্যথায় যা করবেন

হাঁটুর ব্যথায় ভোগেন অনেকেই। বিশেষ করে যাদের ডায়াবেটিস রয়েছে তাদের হাঁটুতে ব্যথা থাকেই। এতে সিঁড়ি দিয়ে ওঠা-নামা, কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকাসহ বেশ কিছু সমস্যাও হয়। এ সমস্যা থেকে রেহাইয়ে চিকিৎসকের পরামর্শে ওষুধ খাচ্ছেন অনেকে। কিন্তু তবু রেহাই মিলছে না। কয়েক দিনের ব্যবধানে আবারও শুরু হয়ে যাচ্ছে ব্যথা। সব সময় ওষুধ না খেয়ে তাৎক্ষণিক কিছু ঘরোয়া পদ্ধতিতে এ ব্যথা নিরাময়ের চেষ্টা করা যায়। যা হাতের কাছে সহজেই পাওয়া যেতে পারে।

হাঁটুর ব্যথা উপশমে রান্নাঘরের কিছু উপকরণ দিয়েই পেতে পারেন সমাধান। সহজ কিছু ঘরোয়া টিপস জানিয়ে দেব আজকের আয়োজনে।

  • আদার ঔষধি গুণের কথা সবার জানা। হাঁটুর ব্যথা কমাতেও এটি দারুণ কাজ করে। আদা চিবিয়ে খেলে হাঁটু ব্যথা অনেকটাই কমে যায়। দিনে দুইবার আদা চা বানিয়ে খান। উপকার পাবেন।
  • হাঁটুতে ব্যথা কমাতে ত্রিফলাও উপকারী। এতে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বৈশিষ্ট্যও রয়েছে। আধা চা চামচ ত্রিফলা গুঁড়ো নিন। তাতে আধা চা চামচ দেশি ঘি ও এক চামচ মধু ভালো করে মেশান। সকালে ঘুম থেকে ওঠার পর এটি খালি পেটে খাবেন। ব্যথা কমে যাবে।
  • তিন-চার চামচ অলিভ অয়েল নিন। হালকা গরম করে এটি ব্যথার জায়গায় আলতো করে কিছুক্ষণ মালিশ করুন। এতে ব্যথা অনেকটাই কমে যাবে। নিয়মিত এই পদ্ধতি ব্যবহার করুন।  দিনে অন্তত দুই থেকে তিনবার। ব্যথা অনেকটা কমবে।
  • জয়েন্টে ব্যথা বা হাঁটুর ব্যথায় তুলসীর রস উপকারী। তুলসীতে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি ও অ্যান্টি-বায়োটিক বৈশিষ্ট্য রয়েছে। যা ব্যথা হ্রাসে অত্যন্ত কার্যকর। কয়েকটা তুলসী পাতা পিষে এর রস বের করুন। এক গ্লাস হালকা গরম জলে এই রস মিশিয়ে পান করুন। প্রতিদিন একবার করে খেলে উপকৃত হবেন।
  • জয়েন্টে ব্যথায় অত্যন্ত কার্যকর জায়ফল। জায়ফলে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বৈশিষ্ট্য রয়েছে। যা  ফোলা এবং ব্যথা হ্রাস করে। জায়ফলের তেল পাওয়া যায় বাজারে। এই তেলের সঙ্গে নারকেল তেল, তিলের তেল মিশিয়ে নিন। তেলের মিশ্রণটি জয়েন্টে লাগিয়ে ম্যাসাজ করুন। আরাম পাবেন।