• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১৩ আশ্বিন ১৪২৮
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১২, ২০২১, ০১:৪৩ এএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ১১, ২০২১, ০৭:৪৩ পিএম

ফাইজারকে পেছনে ফেলছে মর্ডানা

ফাইজারকে পেছনে ফেলছে মর্ডানা
প্রতীকী ছবি

করোনার সবচেয়ে ভয়াবহ ধরন ডেল্টাকে প্রতিরোধ করার ক্ষেত্রে ফাইজারকে পেছনে ফেলেছে মর্ডানা। এই দুইয়ের পেছনে রয়েছে জনসন অ্যান্ড জনসন।

আমেরিকার ৯ রাজ্যে তিন মাস ধরে সমীক্ষা চালিয়ে এসব তথ্য দিয়েছে দেশটির রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ সংস্থা- সিডিসি। জুন থেকে আগস্ট পর্যন্ত চালানো হয় এই সমীক্ষা।

শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) প্রকাশিত সমীক্ষার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সব ধরনের টিকাই কম বেশি করোনাকে প্রতিরোধ করছে। কমাচ্ছে হাসপাতালে ভর্তি ও মৃত্যুর ঝুঁকি।

করোনার টিকাকরণ শেষ করেছেন এমন মানুষ ভাইরাসটিতে হলে মৃত্যুর আশঙ্কা প্রায় ১১ গুণ কম। আর, হাসপাতালে ভর্তির সম্ভাবনাও ১০ গুণ কমে যায়।

বিশেষ করে আমেরিকায় ব্যবহৃত ফাইজার, মর্ডানা ও জনসন- এই তিন টিকাই করোনার ডেল্টা ধরনকে রুখে দিতে পেরেছে। এক্ষেত্রে সবাইকে টেক্কা দিয়েছে মর্ডানা।

সমীক্ষায় দেখা গেছে, হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রুখতে মডার্নার টিকা ৯৫ শতাংশ কার্যকর, ফাইজার ৮০ শতাংশ এবং জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা ৬০ শতাংশ কার্যকর।

সিডিসির সমীক্ষা বলছে, টিকার নেয়া থাকলে ডেল্টা সংক্রমণ যতটা ভয়াবহ হয়ে উঠতে পারছে, কোনও টিকাই না নেয়া থাকলে সেই ভয়াবহতার সম্ভাবনা পাঁচ থেকে সাত গুণ বেড়ে যাচ্ছে।

সমীক্ষায় বলা হয়েছে ৭৫ বছর ও তার বেশি বয়সীদের ক্ষেত্রে মডার্না, ফাইজার ও জনসন এই তিনটি টিকারই কার্যকারিতা কমে যাচ্ছে। যা আগের সমীক্ষাগুলোতে দেখা যায়নি।

জাগরণ/এসএসকে