• ঢাকা
  • সোমবার, ১৫ আগস্ট, ২০২২, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৯
প্রকাশিত: এপ্রিল ২৪, ২০২২, ০৫:৪২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : এপ্রিল ২৪, ২০২২, ১১:৪২ এএম

চীনা পর্যটকদের ভিসা স্থগিত করল ভারত

চীনা পর্যটকদের ভিসা স্থগিত করল ভারত

চীনের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত ভারতীয় শিক্ষার্থীদের ফেরার অনুমতি না দেওয়ায় পাল্টা পদক্ষেপ হিসেবে চীনাদের পর্যটক ভিসা স্থগিত করেছে ভারত। শনিবার আন্তর্জাতিক বিমান সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল এয়ার ট্রান্সপোর্ট এসোসিয়েশন (আইএটিএ) তাদের সদস্যদের ভারতীয় এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দিয়েছে।

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে ভারতে ফিরে আসা প্রায় ২২ হাজার শিক্ষার্থী, যারা চীনের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশুনা করেন, তারা বেইজিংয়ের অনুমতি না মেলায় চীনে ফিরতে পারছেন না। চীনা কর্তৃপক্ষ ভারতীয় শিক্ষার্থীদের ফেরার অনুমতি দিতে অস্বীকৃতি জানানোয় চীনের পর্যটকদের জন্য ভিসা ইস্যুর এই পদক্ষেপ নিয়েছে নয়াদিল্লি।

২০২০ সালের শুরুর দিকে করোনাভাইরাস মহামারি শুরু হওয়ার পর ভারতীয় এই শিক্ষার্থীরা চীন থেকে দেশে ফিরে আসেন। গত ২০ 
এপ্রিল আইএটিএর জারি করা এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, চীনের নাগরিকদের ইস্যু করা পর্যটন ভিসা আর বৈধ নয়।

এতে বলা হয়েছে, ভুটান, ভারত, মালদ্বীপ এবং নেপালের নাগরিক, যাদের ভারতীয় আবাসিকতার পারমিট রয়েছে; ভারতের ইস্যুকৃত ভিসা বা ই-ভিসা, ভারতের বিদেশি নাগরিক কার্ড বা বুকলেটধারী, ভারতীয় বংশোদ্ভূত ব্যক্তি (পিআইও) কার্ডধারী এবং কূটনৈতিক পাসপোর্টধারী ব্যক্তিরা ভারতে প্রবেশের অনুমতি পাবেন।

আইএটিএ বলেছে, ১০ বছরের মেয়াদের ভারতীয় ট্যুরিস্ট ভিসাও আর বৈধ নয়। আন্তর্জাতিক বিমানসংস্থা আইএটিএর বিশ্বজুড়ে ২৯০ সদস্য রয়েছে। এই সংস্থার সদস্য বিমান সংস্থাগুলো বিশ্বের ৮০ ভাগের বেশি বিমান পরিবহন করে। ই-ট্যুরিস্ট ভিসা ব্যবহার করে যারা ভারতে ভ্রমণ করতে পারবেন না, তাদের মধ্যে রয়েছে যুক্তরাজ্য এবং কানাডার নাগরিকরাও। তবে জাপান এবং যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকরা এই নিষেধাজ্ঞার বাইরে থাকবেন।

টাইমস অব ইন্ডিয়া বলছে, ‌থাইল্যান্ড, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কার শিক্ষার্থীদের ফেরার অনুমতি দিলেও বেইজিং ভারতীয় শিক্ষার্থীদের অস্বীকৃতি জানিয়েছে। গত মাসে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ইর ভারত সফরে এই ইস্যুটি তুলেছিলেন দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। তবে বেইজিং এই বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনও পদক্ষেপ নেয়নি।

 

এসকেএইচ//