• ঢাকা
  • বুধবার, ০৬ জুলাই, ২০২২, ২২ আষাঢ় ১৪২৯
প্রকাশিত: মে ১৭, ২০২২, ০১:০৬ এএম
সর্বশেষ আপডেট : মে ১৬, ২০২২, ০৭:০৬ পিএম

রনিল বিক্রমাসিংহে

‘শুধু একদিনের পেট্রোল মজুদ আছে’

‘শুধু একদিনের পেট্রোল মজুদ আছে’
সংগৃহীত ছবি

এই মুহূর্তে আমাদের কাছে শুধু একদিনের পেট্রোল মজুদ আছে। সংকটে বিধ্বস্ত শ্রীলঙ্কায় পেট্রোলের মজুদ ফুরিয়ে গেছে এবং প্রয়োজনীয় আমদানির জন্য অর্থ পাওয়া পাচ্ছে না বলে জানিয়েছেন শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে।

সোমবার (১৬ মে) জাতির উদ্দেশ্যে এক ভাষণে তিনি এসব বলেছেন।

 

দেউলিয়া হয়ে দেশটি আগামী মাসগুলিতে আরও অসুবিধার সম্মুখীন হতে পারে বলে সতর্ক করে তিনি বলেন, আমাদের পেট্রোল ফুরিয়ে গেছে।

তিনি জানান, সরকার তেলের তিনটি চালানের জন্য অর্থ প্রদানের জন্য ডলার বাড়াতেও অক্ষম। জাহাজগুলি তাদের কার্গো ছাড়ার আগে প্রয়োজনীয় অর্থ পরিশোধের জন্য কলম্বো বন্দরের বাইরে অপেক্ষা করছে।

আগামী কয়েক মাস আমাদের জীবনের সবচেয়ে কঠিন মাস হবে। সত্যকে আড়াল করার এবং জনসাধারণের কাছে মিথ্যা বলার কোনো ইচ্ছা আমার নেই।

তিনি জনগণকে ধৈর্য নিয়ে আগামী কয়েক মাস সহ্য করার আহ্বান জানিয়েছেন এবং প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন শীঘ্রই সংকট কাটিয়ে উঠতে পারবেন।

রেকর্ড মুদ্রাস্ফীতি এবং দীর্ঘ বিদ্যুতের ব্ল্যাকআউটের মুখোমুখি হয়ে শ্রীলঙ্কার প্রায় ২২ মিলিয়ন মানুষ খাদ্য, জ্বালানী এবং ওষুধের সুরক্ষার জন্য গুরুতর সমস্যা নিয়ে সর্বকালের সবচেয়ে খারাপ অর্থনৈতিক সংকটের মধ্যে রয়েছে।

বিক্রমাসিংহে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। তার পূর্বসূরি মাহিন্দা রাজাপাকসে অর্থনৈতিক সঙ্কট নিয়ন্ত্রণে সরকারের পরিচালনায় ব্যর্থ হয়ে বিক্ষোভের মুখে ক্ষমতা ছাড়তে বাধ্য হোন। এনডিটিভি।

জাগরণ/আন্তর্জাতিক/শ্রীলঙ্কাপরিস্থিতি/কেএপি