• ঢাকা
  • রবিবার, ১৭ নভেম্বর, ২০১৯, ২ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬
প্রকাশিত: অক্টোবর ২১, ২০১৯, ০৮:১০ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ২১, ২০১৯, ০৮:১০ পিএম

রায় নিয়ে বিচারকের বিরুদ্ধে বলা কাম্য নয় : আমিন উদ্দিন

জাগরণ প্রতিবেদক
রায় নিয়ে বিচারকের বিরুদ্ধে বলা কাম্য নয় : আমিন উদ্দিন
সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ এম আমিন উদ্দিন-ফাইল ছবি

হাইকোর্টের নবনিযুক্ত ৯ অতিরিক্ত বিচারপতির মধ্যে দুইজনের নিয়োগের বিষয়ে বিএনপি নেতা ও সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক মাহবুব উদ্দিন খোকনের বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে বক্তব্য দিয়েছেন সমিতির সভাপতি এ এম আমিন উদ্দিন।

সোমবার (২১ অক্টোবর) আওয়ামী লীগের প্যানেল হিসেবে পরিচিত সাদা প্যানেল থেকে নির্বাচিত হয়ে আসা এই আইনজীবী গণমাধ্যমকে বলেন, নিশ্চিতভাবে বলতে পারি এটি তিনি (মাহবুব উদ্দিন) রাজনীতিবিদ হিসেবে বলেছেন,  অবশ্যই এটা আইনজীবী হিসেবে বলেননি।

দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে মাহবুব উদ্দিন বলেন, ‘দুঃখজনক হলেও সত্য আজকে বিচারপতিদের তালিকায় দুইজন বিচারপতির নাম দেখা যাচ্ছে, যারা দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় নেত্রী, তিনবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে মিথ্যা মামলায় সাজা দিয়েছেন। আরেকজন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে সাজা দিয়েছেন। মনে হয় তাদের পুরস্কৃত করতে সরকারের পক্ষ থেকে সুপারিশের ভিত্তিতে বিচারক নিয়োগ করা হয়েছে।’

এরপর গণমাধ্যমের প্রশ্নে সভাপতির কক্ষে বসে এ এম আমিন উদ্দিন বলেন, একটা বিচারককে মূল্যায়ণ করা হয় তার জীবনের অনেকগুলো রায়ের মাধ্যমে। যদি আমার বিরুদ্ধে রায় দেন তাহলে তিনি খারাপ বিচারক হয়ে গেলেন- এ ধরনের মনোভাব তো আমাদের অবশ্যই থাকা উচিত না। 

বিচারক যখন রায় দেবেন তার বিরুদ্ধে উচ্চতর আদালত আছে। তিনি আদালতে যাবেন। বিচারক রায় দিলে তার বিরুদ্ধে কথা বলা আইনজীবী হিসেবে কোনওভাবেই কাম্য নয়। উনি (মাহবুব উদ্দিন) বলেছেন, কি- না জানি না। তবে নিশ্চিতভাবে বলতে পারি, এটি তিনি রাজনীতিবিদ হিসেবে বলেছেন। অবশ্যই এটা আইনজীবী হিসেবে বলেননি।

তিনি বলেন, বিচার কার্য-পরিচালনা করলে যদি মনে করেন উনারা (মাহবুব উদ্দিন) সংক্ষুব্ধ। সেক্ষেত্রে উনারা তো আপিলই করেছেন। কেন বিচারকদের বিরুদ্ধে বলবেন? এখন কেউ মামলায় হেরে গেলে, প্রত্যেকে বলবেন এ বিচার ঠিক হয়নি।

রোববার (২০ অক্টোবর) হাইকোর্ট বিভাগে ৯ জন অতিরিক্ত বিচারক নিয়োগ দেন রাষ্ট্রপতি। পরে ওইদিনই এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে আইন মন্ত্রণালয়। 

সংবিধানের ৯৮ অনুচ্ছেদের ক্ষমতাবলে শপথগ্রহণের দিন থেকে অনধিক দুইবছরের জন্য ৯ জনকে বাংলাদেশ সুপ্রিমকোর্ট, হাইকোর্ট বিভাগে অতিরিক্ত বিচারক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এ নিয়োগ শপথগ্রহণের দিন থেকে কার্যকর হবে।

সোমবার (২১ অক্টোবর) সকালে ওই ৯ অতিরিক্ত বিচারপতি শপথ নিয়েছেন।

এমএ/এসএমএম

আরও পড়ুন