• ঢাকা
  • সোমবার, ০৬ জুলাই, ২০২০, ২১ আষাঢ় ১৪২৭
প্রকাশিত: মার্চ ৮, ২০২০, ১১:০৭ এএম
সর্বশেষ আপডেট : মার্চ ৮, ২০২০, ১১:০৭ এএম

জয়বাংলা কনসার্ট : প্রধানমন্ত্রীর আগমনে পায় নতুন মাত্রা

জাগরণ ডেস্ক
জয়বাংলা কনসার্ট : প্রধানমন্ত্রীর আগমনে পায় নতুন মাত্রা
জয় বাংলা কনসার্টে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, শেখ রেহানা, সায়মা ওয়াজেদ পুতুল ও রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক - ছবি : পিআইডি

মুজিববর্ষে আরো একবার ফিরে এলো তারুণ্যের উচ্ছ্বাসে উদ্ভাসিত জয় বাংলা কনসার্ট। বঙ্গবন্ধুর দেয়া ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণের চেতনা পুনরুজ্জীবিত করতে শনিবার (৭ মার্চ) বাংলাদেশ আর্মি স্টেডিয়ামে যথাযথ মর্যাদায় জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে বার্ষিক জয়বাংলা কনসার্ট শুরু হয়।

কনসার্টে মঞ্চ মাতায় দেশের বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় ১১ ব্যান্ডদল। সন্ধ্যায় সেখানে বোন শেখ রেহানাকে নিয়ে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাদের সঙ্গে ছিলেন সায়মা ওয়াজেদ পুতুল ও রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক। আরো উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলি দাস।

বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক ‘ইনট্রয়েট’, ‘আর আক্জটা রক ব্যান্ড’ ‘এডভার্ব’, ‘সিন’ ও ‘কনক্লুসন’ এই ৫টি ব্যান্ডের সংগীত পরিবেশনের মধ্যদিয়ে দুপুর দেড়টায় এ কনসার্ট শুরু হয়। দর্শকদের মন মাতাতে জনপ্রিয় ব্যান্ড দল এফ মাইনর, মিনার রহমান, এভয়েড রাফা, শূন্য, ভাইকিং, লালন ও আরবোভাইরাস’ সংগীত পরিবেশন করে।

সন্ধ্যায় ‘গ্রাফিক্যাল উপস্থাপনায়’ বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ এবং ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধের চিত্র পর্দায় প্রদর্শন করা হয়। পরে, দেশের শীর্ষস্থানীয় ব্যান্ড দল ব্যান্ডদল ক্রিপটিক ফেইট, নেমেসিস, ফুয়াদ অ্যান্ড ফ্রেন্ডস ও চিরকূট মঞ্চে দর্শকদের মনমাতিয়ে সংগীত পরিবেশন করে। 

রাত সাড়ে ১১টায় পরিবেশনায় ছিল ব্যান্ড দল ‘ফুয়াদ অ্যান্ড ফ্রেন্ডস’। এক পর্যায়ে এই ব্যান্ডের ফুয়াদ আল মুক্তাদির ঘোষণা করেন, এখন আমি আপনাদের জন্য সারপ্রাইজ হিসাবে একজনকে হাজির করছি, যিনি এই সময়ে অসংখ্য ব্যান্ডকে নিজ হাতে গড়ে তুলেছেন। আমার বড় ভাই সুমনকে এখন মঞ্চে আহ্বান করছি।

জয় বাংলা কনসার্টে সঙ্গীত পরিবেশন করেন অর্থহীন ব্যান্ডের প্রতিষ্ঠাতা ও লিড গিটারিস্ট ‍সুমন   ছবি : সংগৃহীত

এ ঘোষণায় স্টেডিয়ামের গ্যালারি থেকে দৌড়ে এসে দর্শক সারির সামনে হাজির হয় শেষবেলায় উপস্থিত তরুণ-তরুণীরা। এ সময় ক্রাচে ভর দিয়ে দৃঢ় পদক্ষেপে মঞ্চর সামনে আসেন অর্থহীন ব্যান্ডের প্রতিষ্ঠাতা ও লিড গিটারিস্ট ‍সুমন, যিনি ‘বেজ বাবা সুমন’ নামেই শ্রোতাদের কাছে বেশি পরিচিত। নিজের চিকিৎসার সর্বশেষ অবস্থা জানানোর পাশাপাশি সুস্থতার জন্য ভক্তদের কাছে দোয়া চান তিনি। কনসার্টের শেষ প্রান্তে এসে হাজারো দর্শক-শ্রোতার সামনে উপস্থিত হয়ে সুমন শোনান দুটি জনপ্রিয় গান- ‘আমার প্রতিচ্ছবি’ এবং ‘গাইবো না আর কোনো গান তোমায় ছাড়া’।

গত বছরের মতো এবারও এসব ব্যান্ডদল স্বাধীনবাংলা বেতার কেন্দ্র থেকে সম্প্রচারকৃত বিভিন্ন ধরনের গানসহ নিজ-নিজ ব্যান্ডদলের নিজস্ব সংগীত পরিবেশন করে। সিআরআই-এর উদ্যোগে দেশের শীর্ষস্থানীয় যুব নেটওয়ার্ক ইয়ং বাংলা ২০১৫ সাল থেকে প্রতিবছর যুব সমাজের মধ্যে স্বাধীনতার চেতনা পুনরুজ্জীবিত করার লক্ষ্যে এই বিশাল কনসার্টের আয়োজন করে আসছে।

এফসি