• ঢাকা
  • সোমবার, ০৬ এপ্রিল, ২০২০, ২৩ চৈত্র ১৪২৬
প্রকাশিত: জানুয়ারি ৫, ২০২০, ০৭:৪৯ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জানুয়ারি ৫, ২০২০, ০৭:৪৯ পিএম

ফারহানা নীলা’র কবিতা

.
ফারহানা নীলা’র কবিতা

অনন্ত হাহাকার
মোমবাতি জ্বালিয়ে বন্ধ করো না বাতাস...
পড়ে আছে বিছানো মোমের গলিত আঁধার।
অক্লেশে পুড়ে যাই আমি,
নষ্ট হবার কষ্ট পোড়ে ইঁটপাথরের স্তুপে।
কংক্রিটের বুকে আজ বাতাসের বড় অভাব
জ্বলছি তবু নিভু নিভু!
এক মানবের নষ্ট কষ্ট পোড়ায় কি অনন্ত হাহাকার?

পান্থশালা

ক্ষয়ে যাওয়া চাঁদেও থাকে জানি
ঘোর পূর্নিমার আবাহন।
চাঁদের কড়িকাঠে ঝুলে রয় মৌন আঁধার
আঁধারের রেকাবীতে পূর্নিমার ঝাড়বাতি।
সেখানেই এক আমি খুব আছি
আছি নিয়ে একান্ত অন্তর্নিহিত আমিকে।
সেখানেই রয়ে যাই বিশদভাবে আরো আমি।
দিনগুলো ফাগুনের মত আগুন ছড়ায় না;
স্মৃতির বকুল খেরোখাতার পাতায় যদিও রয়ে যায়;
বিভ্রমের ঘোরলাগা সুতায় টান পরলে
জানা হয় ছিন্ন লাটাইয়ের নির্বাক কথন।
অংশুমান সংসারে ঘুরে গেলে বোঝা হয়
সেখানেও ছিল চন্দ্রাহত ব্যথা;
জানা আর অজানার উন্মত্ত খেলা দেখেই চিনেছি
জীবন মানেই পুঁইলতার মত পেঁচিয়ে ওঠা নয়
জীবন মানেই অংকুরিত বীজের গোপনীয়তা নয়
কখনো কখনো মৌরাণীর মত পরিবেষ্টনের নিদারুণ
অর্থহীন ঘিরে থাকা;
জীবন মানে কখনো কখনো ভীষনভাবে হয়ে ওঠা
নিঃশেষ জীবনের মায়াবী আলো,
টানেলের শেষ প্রান্তে মৃদু আলোর অনিঃশেষ হাতছানি;

সব কিছুর পরও তাই আবারো
পথ খুঁজে নেই পান্থশালায়,
একটু একটু এগিয়ে পৌঁছে যাই
ক্ষতিসাধনের অপয়া নগরে।

\

 বলবো না কোনো কথা

এমন কোনো শব্দ জানা নেই আমার,
এমন কোনো প্রকাশ ভঙ্গিতে বলা হয় না অব্যক্ত কাব্য ;
 জীবনের পরতে পরতে বিছিয়ে রয়েছি তবু ......
এমন কোনো মৃত্যু নেই; আমার বেঁচে থাকার মত একা!
অতঃপর মৃত্যুকে সঙ্গী করে খুঁজে ফিরি মৃত্যুর অধিক একাকীত্ব!
শব্দের ডালি শূন্য পড়ে থাক; শূন্য এই পথে 
প্রাপ্তি অপ্রাপ্তি ঝুলে থাক গাছে গাছে!
আজ আমার বাঙময়তা খুবলে খাক আমার শব্দের উৎস.....
আর আমি বলবো না কথা, বলবো না কোনো কথা কোনোদিন!


কেউ আসেনি


অমন করে কেউ ডাকে নি
অমন করে কেউ আসে নি!
ভালবেসে ভুলিয়ে দুখ, কেউ বলে নি
ভালবাসা-- ভালই বাসি!

শিউলি মালা কেউ গাঁথে নি
শরত ছুঁয়ে সেই ছবিটি,কেউ আঁকে নি!
ভুলের পাহাড় ডিঙিয়ে এসে
হাতটি ধরে কেউ বলে নি
তোমার জন্য, তোমায় শুধু ভালবাসি!

কাশবনের দোলায় দুলে কেউ ডাকে নি
সাদা বনে, সাদা মনে
মন উঁচিয়ে কেউ থাকে নি!
অপেক্ষারা চোখের তারায় জল ছুঁয়েছে
জল ডিঙিতে কেউ ওঠে নি!
ঝিরিঝিরি কাঁপন বুকে কেউ বলে নি
একটু শুধু ভালবাসি!

বন্ধ মনের কপাট খুলে
অন্ধ সেজন আর ডাকে নি!
ভালবাসায় ভুলায় নি সে
হারায় কেবল পেছন পানে!
সামনে এসে স্বপ্ন ছুঁয়ে কেউ দেখে নি
আলতো চুমে নয়ন মুদে কেউ বাঁধে নি!
ভালবাসার আদর ধুয়ে কেউ বলে নি
মেয়ে তুমি তোমার মতই -- 
তোমায় আমি ভালই বাসি!