• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ০৭ এপ্রিল, ২০২০, ২৪ চৈত্র ১৪২৬
প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ৩, ২০২০, ১১:২৯ এএম
সর্বশেষ আপডেট : ফেব্রুয়ারি ৩, ২০২০, ১১:৩০ এএম

শেখ হাসিনার সম্পাদনায় প্রকাশ হবে ‘শেখ মুজিবুর রহমান রচনাবলী’

এসএম মুন্না
শেখ হাসিনার সম্পাদনায় প্রকাশ হবে  ‘শেখ মুজিবুর রহমান রচনাবলী’
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান শুধু রাজনীতিবিদই ছিলেন না। ছিলেন একজন লেখকও। তার লেখা তিনটি বই ধারাবাহিকভাবে প্রকাশ করেছে বাংলা একাডেমি। সর্বশেষ রোববার (২ ফেব্রুয়ারি) অমর একুশে গ্রন্থমেলার উদ্বোধনী দিনে প্রকাশিত হয়েছে চীন সফরের অভিজ্ঞতা নিয়ে বঙ্গবন্ধুর লেখা বই ‘আমার দেখা নয়া চীন’। এটি বঙ্গবন্ধুর লেখা তৃতীয় বই। উদ্বোধনী মঞ্চে বইটির মোড়ক উন্মোচন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর আগে বঙ্গবন্ধুর লেখা দুটি বই ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’ ও ‘কারাগারের রোজনামচা’ প্রকাশিত হয়েছে বাংলা একাডেমি থেকে।

রোববার (২ ফেব্রুয়ারি) অমর একুশে গ্রন্থমেলার উদ্বোধনী মঞ্চ থেকে আসলো আরও একটি বই প্রকাশের ঘোষণা। একাডেমির মহাপরিচালক ও কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী জানান, বঙ্গবন্ধুর যাবতীয় লেখা সংগ্রহ করে এক মলাটে প্রকাশ করা হবে ‘শেখ মুজিবুর রহমান রচনাবলী’। আর রচনাবলীটি সম্পাদনা করবেন বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

হাবীবুল্লাহ সিরাজী দৈনিক জাগরণকে জানান, গ্রন্থমেলা শেষ হওয়ার পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে বসে ‘সম্পাদনাকর্ম’ চূড়ান্ত করা হবে। যেহেতু বইটি সম্পাদনা করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তার মতামতই চূড়ান্ত। 

সিরাজী জানান, রচনাবলীতে বঙ্গবন্ধুর লেখা ছাড়াও বেশকিছু দুর্লভ আলোকচিত্র সন্নিবেশিত করা হবে।এগুলোর পরিকল্পনা এখনও প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে।

রোববার ( ২ ফেব্রুয়ারি) বঙ্গবন্ধুর লেখা বই ‘আমার দেখা নয়া চীন’ এর মোড়ক উন্মোচন করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, কারাগারে খাতা সেন্সর করে দেয়া হতো। সেই সেন্সরের সিল থেকে আমরা জানতে পারি এটি ১৯৫৪ সালে লেখা। মলাটটি অনেকটা চীনা অক্ষরের মতো করে লেখা। মনোগ্রামটি পিকাসোর তৈরি করা।

শেখ হাসিনা বলেন, ১৯৫২ সালে বঙ্গবন্ধু চীনে শান্তি সম্মলনে গিয়েছিলেন। পূর্ববঙ্গ থেকে প্রতিনিধি দলের সদস্য হিসেবে তিনি আমন্ত্রিত ছিলেন। সেখানে যাবার পথটি, কীভাবে গিয়েছেন তার বিস্তারিত বর্ণনা আছে। বিশেষভাবে লক্ষণীয়, এই বইতেই লেখা আছে- তিনি শান্তি সম্মেলনে বাংলা ভাষায় বক্তৃতা দিয়েছিলেন। মনোজ বসু তার বইতে এ কথা লিখেছেন। এসব নানা তথ্য বইটিতে পাওয়া যাবে।

‘আমার দেখা নয়া চীন’ বঙ্গবন্ধুর লেখা তৃতীয় বই। এর আগে বঙ্গবন্ধুর লেখা দুটি বই ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’ ও ‘কারাগারের রোজনামচা’ প্রকাশিত হয়েছে।

এসএমএম

আরও পড়ুন