• ঢাকা
  • বুধবার, ১৩ নভেম্বর, ২০১৯, ২৯ কার্তিক ১৪২৬
প্রকাশিত: নভেম্বর ৮, ২০১৯, ০৪:৫০ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : নভেম্বর ৮, ২০১৯, ০৫:৫১ পিএম

ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানতে পারে শনিবার, মোকাবেলায় প্রস্তুত সরকার

জাগরণ প্রতিবেদক
ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানতে পারে শনিবার, মোকাবেলায় প্রস্তুত সরকার
ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় সচিবালয়ে দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের বৈঠক

ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ মোকাবেলায়  সরকারের সব ধরণের প্রস্তুতি রয়েছে বলে জানিয়েছেন  দূর্যোগ ব্যাবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা.এনামুর রহমান। 

তিনি বলেছেন, এই ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ খুলনা ও বরিশালের দিকে ধেয়ে আসছে। খুলনা ও বরিশাল এলাকা থেকে এখন ৬শ’ ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড়টি। তবে শনিবার সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাতের কোনো এক সময় আঘাত হানতে পারে। 

প্রতিমন্ত্রী জানান, খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, বরিশাল, বরগুনা ও পিরোজপুরের কিছু কিছু এলাকায় আঘাত হানতে পারে।তবে তা মোকাবিলায় সরকারের সব ধরণের প্রস্তুতি রয়েছে।  

শুক্রবার (০৮ নভেম্বর) বিকেলে সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ মোকাবেলায় আন্তঃমন্ত্রণালয়ের বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ প্রস্তুতির কথা জানান। 

সাংবাদ সম্মেলনের আগে  ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলা নিয়ে আন্তঃমন্ত্রণালয়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান সভাপতিত্ব করেন। বৈঠকে ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব শাহ কামালসহ আবহাওয়া বিভাগের কর্মকর্তা ও আইনমৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। আগামীকাল শনিবার বেলা ১১টায় সার্বিক পরিস্থিতি তুলে ধরতে সংবাদ সম্মেলন আহবান করা হয়েছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী বলেন, ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় সরকার সবধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে। ইতিমধ্যেই পর্যাপ্ত ত্রাণ-সামগ্রী খুলনা ও বরিশাল বিভাগে পাঠানো হয়েছে। এ দুই বিভাগীয় এলাকা থেকে ঘূর্ণিঝড়টি এখন প্রায় ৬শ’ ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে। তবে তা ধেয়ে আসছে বলে জানান তিনি।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এই ঘূর্ণিঝড়ে প্রায় ৫ থেকে ৭ ফুট জলোচ্ছ্বাসের  আশংকা রয়েছে। সিগনাল এখন চার আছে। তবে ৫, ৬ এবং ৭ হলেই রেসকিউ শুরু হবে। আমরা আশা করছি আগামীকাল সকাল ১১টা থেকে দুই বিভাগের সাত জেলার মানুষকে নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হবে।

 

এমএএম/বিএস 
 

আরও পড়ুন