• ঢাকা
  • রবিবার, ০৭ মার্চ, ২০২১, ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭
প্রকাশিত: জানুয়ারি ২৭, ২০২১, ০৬:২৩ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জানুয়ারি ২৭, ২০২১, ০৬:২৩ পিএম

টিকার মাধ্যমে করোনা নির্মূল সম্ভব হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

টিকার মাধ্যমে করোনা নির্মূল সম্ভব হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

টিকার মাধ্যমে করোনায় আক্রান্ত এবং মৃত্যু নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল করা সম্ভব হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। বুধবার (২৭ জানুয়ারি) বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ভ্যাকসিন প্রধান কার্যক্রমের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভ্যাকসিন প্রদান কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, “মুজিববর্ষের উপহার করোনার টিকাদান কর্মসূচি। করোনায় আক্রান্ত এবং মৃত্যু এই টিকার মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল করা সম্ভব হবে। বিশ্বের প্রায় সকল বৃহৎ শক্তিধর দেশকে তাক লাগিয়ে কোভিড নিয়ন্ত্রণে বিশাল সফলতা পেয়েছে বাংলাদেশ।”

জাহিদ মালেক আরো বলেন, “করোনা ভাইরাস পৃথিবীতে প্রথম দেখা দিয়েছে। যার ফলে এর চিকিৎসা এবং সংক্রামণ রোধের ব্যবস্থা কারোই জানা ছিলো না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে সার্বক্ষণিক তদারকি ও দিক নির্দেশনায় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও অন্যান্য মন্ত্রণালয় বিভিন্ন পদক্ষেপের মাধ্যমে আমরা কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে সক্ষম হয়েছি।”

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরো বলেন, “প্রায় তিন মাস আগে আমরা নো মাস্ক নো সার্ভিস কার্যক্রম শুরু করেছি। যা গত সপ্তাহে নতুন শপথ গ্রহণের মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন তার দেশে চালু করেছেন। সকলকে মাস্ক পরার নির্দেশনা দিয়েছেন।”

জাহিদ মালেক আরো বলেন, “থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া, শ্রীলংকা ও ইউরোপের অনেক দেশ এখনো করোনার ভ্যাকসিন পায়নি। অথচ আমরা ৩ কোটি ভ্যাকসিন ক্রয় করেছি এবং ইতোমধ্যে ২০ লাখ উপহারসহ প্রায় ৭০ লাখ ভ্যাকসিন দেশে এসে পৌঁছেছে।”

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরো বলেন, “টিকা গ্রহণ নিবন্ধনের জন্য আইসিটি মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সুরক্ষা অ্যাপ তৈরি করা হয়েছে। টিকা প্রদানের জন্য সকল ধরনের সুরক্ষা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। টিকা গ্রহীতার নিরাপত্তার জন্য আলাদা সুরক্ষা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। যদি কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয় তার সকল চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।”
 

আরও পড়ুন