• ঢাকা
  • শনিবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২১, ১১:৪৭ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২১, ১১:৪৮ পিএম

১১ ঘণ্টা স্কুলের টয়লেটে আটকে ছিল শিক্ষার্থী শারমিন

১১ ঘণ্টা স্কুলের টয়লেটে আটকে ছিল শিক্ষার্থী শারমিন
সংগৃহীত ছবি

ক্লাস ছুটির পর সবাই বাড়ি গেলেও বিদ্যালয়ের টয়লেটে আটকে যায় এক শিক্ষার্থী। চিৎকার করে যে কাউকে ডাকডাকি করবে, সে উপায়ও ছিল না। স্কুলের টয়লেটে আটকে থাকা এসএসসি পরীক্ষার্থী শারমিন আক্তার বাকপ্রতিবন্ধী। 

রাস্তায় ঘুরতে আসা এক তরুণের বিষয়টি দৃষ্টিগোচর হলে রাত ১০টার পর টয়লেটের তালা ভেঙে ওই শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করা হয়।

চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলার টামটা উত্তর ইউনিয়নের হোসেনপুর বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ে বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় কারর গাফিলতি পেলে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শিরীন আক্তার।

এলাকাবাসী ও ছাত্রীর পরিবার সূত্রে জানা যায়, কচুয়ার আশ্রাফপুর দক্ষিণপাড়া হাজি বাড়ির আনোয়ার হোসেনের কন্যা শারমিন আক্তার এবার এসএসসি পরীক্ষার্থী। শারমিন বাকপ্রতিবন্ধী হলেও পড়াশোনায় তার অনেক আগ্রহ। এজন্য দীর্ঘদিন পর স্কুল খোলা হওয়ায় এখন প্রতিদিন ক্লাসে হাজির হয় সে।

বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টায় বিদ্যালয় ছুটি হয়। তখন টয়লেটে প্রবেশ করে শারমিন। কিন্তু টয়লেট থেকে সে বের হওয়ার আগেই বিদ্যালয়ের আয়া শাহানারা আক্তার শানু বাইরে থেকে তালা বন্ধ করে দেন। বাকপ্রতিবন্ধী হওয়ায় কাউকে ডাকতে না পেরে টয়লেটে আটকা পড়ে শারমিন। ছুটির পর বাড়ি না ফেরায় শারমিনের পিতা তার সহপাঠী ও আত্মীয়ের বাড়িতে তাকে খুঁজতে থাকেন। কিন্তু কোথাও তার সন্ধান পাননি।

জাগরণ/এমএ