• ঢাকা
  • শনিবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২১, ০৪:২৮ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২১, ১০:২৮ এএম

ভারতে সোহেল রানার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে আটক বাংলাদেশি

ভারতে সোহেল রানার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে আটক বাংলাদেশি
ছবি- জাগরণ।

বিএসএফের হাতে আটক হওয়া ই-কমার্স ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ই-অরেঞ্জের অন্যতম মালিক বনানী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ সোহেল রানার সঙ্গে ভারতে দেখা করতে গিয়ে এক বাংলাদেশি গ্রেপ্তার হয়েছেন।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে টিভি নাইনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। ওই প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে- আটক বাংলাদেশির নাম মোহাম্মদ বাহারুল। শিলিগুড়ি পুলিশ তাকে আটক করেছে।

পুলিশ সূত্রের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, বাহারুল শিলিগুড়ির একটি হোটেলে ঘাঁটি গেড়েছিলেন। সেখান থেকেই তিনি মেখলিগঞ্জের জেলে বন্দি সোহেলের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা চালাচ্ছিলেন।

অবৈধ পথে ভারত থেকে নেপালে যাওয়ার সময় চলতি মাসের শুরুর দিকে বিএসএফের হাতে আটক হন সোহেল রানা।

ই-অরেঞ্জের বিভিন্ন অনিয়মের তদন্ত করতে গিয়ে শুরু থেকেই পুলিশের বনানী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ সোহেল রানার নাম আসে, যদিও বরাবর তিনি তা অস্বীকার করে আসছিলেন। তবে সমকালের হাতে আসা প্রতিষ্ঠানটির কিছু নথি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, 'অরেঞ্জ বাংলাদেশ' নামে প্রতিষ্ঠান খুলতে যে টিআইএন সনদ নেয়া হয়, সেখানে পরিচালক হিসেবে সোহেল রানার নাম আছে। সোহেল রানা শুধু পরিচালক নন, প্রতিষ্ঠানটি থেকে আড়াই কোটি টাকা বিভিন্ন সময় তুলেও নিয়েছেন। আরও কয়েকজন এভাবে টাকা তুলে নিয়েছেন। সব মিলিয়ে ই-অরেঞ্জের দুটি ব্যাংক হিসাব থেকে তুলে নেয়া হয়েছে ৩৪৯ কোটি টাকা। এসব টাকা লোপাট করা হয়েছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। একাধিক সংস্থা বেহাত হওয়া অর্থের অনুসন্ধানে তদন্ত শুরু করেছে।

সোহেল রানাকে দেশে ফেরাতে বাংলাদেশ থেকে তিন দফায় ভারতীয় কর্তৃপক্ষকে চিঠি দেয়া হয়েছে। তবে ভারতীয় পক্ষ থেকে এ বিষয়ে এখনও কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি।

 

জাগরণ/এসকেএইচ