• ঢাকা
  • সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১১ আশ্বিন ১৪২৯
প্রকাশিত: মে ১, ২০২২, ০৩:৫৩ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : মে ১, ২০২২, ০৯:৫৩ এএম

চিরঘুমে আবুল মাল আবদুল মুহিত

চিরঘুমে আবুল মাল আবদুল মুহিত
সংগৃহীত ছবি

সাবেক অর্থমন্ত্রী, সিলেট-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য আবুল মাল আবদুল মুহিতের শেষ জানাজা সিলেটের ঐতিহ্যবাহী আলীয়া মাদরাসা মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছে। জানাজায় অংশ নিতে আসা মানুষের উপস্থিতিতে মাদরাসার বিশাল মাঠ লোকারণ্য হয়ে উঠে। 

রোববার দুপুর ২ টা ১৮ মিনিটে অনুষ্ঠিত জানাজায় ইমামতি করেন সিলেটের খ্যাতিমান আলিম আল্লামা মুহিবুল হক গাছবাড়ি। পরে দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

পৌনে ৩টার দিকে তার দাফন সম্পন্ন হয়।  

 

জানাজাপূর্ব সংক্ষিপ্ত অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন আবুল মাল আবদুল মুহিতের ছোট ভাই, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সিলেট-১ আসনের সংসদ সদস্য ড. এ কে আব্দুল মোমেন, পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান, সিলেট-২ আসনের সংসদ সদস্য মোকাব্বির খান, সিলেট-২ আসনের সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, সিলেট-৫ আসনের সংসদ সদস্য হাফিজ আহমদ মজুমদার, সিলেট কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ময়মনসিংহ বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী, আওয়ামী লীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ প্রমুখ।

এ কে আবদুল মোমেন বলেন, ‘আমার জন্য বেদনার কারণ আমি আমার ভাই হারিয়েছি। কিন্তু আমি মনে করি জাতির জন্য একটা সম্পদ, একজন ভিশনারি লিডার আমরা হারিয়েছি। দোয়া করেন, আমরা যেন ওনার মতো সততার সঙ্গে, আন্তরিকতার সঙ্গে, নিষ্ঠার সঙ্গে মানুষের মঙ্গলে কাজ করতে পারি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের ভাইকে কাজ করার সুযোগ দিয়েছিলেন। এজন্য আমরা তাঁর প্রতিও কৃতজ্ঞ। ’ এসময় বড় ভাইয়ের জন্য দোয়া চেয়ে তিনি বলেন, ‘আমার বড় ভাই মুহিতকে সবাই ক্ষমা করে দেবেন। তার জন্য দোয়া করবেন। ’

জানাজা শেষে নগরের রায়নগরের বিখ্যাত ডেপুটি বাড়িতে পারিবারিক কবরস্থানে বাবা মরহুম অ্যাডভোকেট আবু আহমদ আব্দুল হাফিজ এবং মা সৈয়দ শাহার বানু চৌধুরীর কবরের পাশে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন বাংলাদেশের অর্থনীতিকে অন্য উচ্চতায় নিয়ে যাওয়া বহুমাত্রিক এই মানুষটি।

এর আগে সিলেটের সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য দুপুর ১২টায় সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আবুল মাল আবদুল মুহিতের মরদেহ আনা হয়। তাকে বহনকারী ফ্রিজারভ্যান শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে পৌঁছালে এক শোকাবহ পরিস্থিতি তৈরি হয়।  

মুহিতের মরদেহ বেলা ১২টায় আসলেও সকাল ১০টা থেকে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মী থেকে শুরু করে বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও পেশাজীবী সংগঠনের নেতৃবৃন্দসহ সাধারণ মানুষ ভিড় জমাতে দেখা যায়। দুপুর ১২টার আগেই শহিদ মিনার এলাকা লোকে লোকারণ্য হয়ে যায়।

আবুল মাল আবদুল মুহিত গত শুক্রবার (২৯ এপ্রিল) দিবাগত রাত ১২টা ৫৬ মিনিটে রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৮ বছর। ঢাকায় শ্রদ্ধা নিবেদন এবং জানাজা শেষে গতকাল শনিবার রাত পৌনে ১০টার দিকে তার মরদেহ সড়কপথে সিলেট এসে পৌঁছায়।

সাবেক অর্থমন্ত্রী মুহিতের মৃত্যুতে দুই দিনের শোক ঘোষণা করেছে সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ। এ সময় দলীয় অস্থায়ী কার্যালয়ে কালো পতাকা উত্তোলনসহ নেতাকর্মীরা কালো ব্যাচ ধারণ করবেন।

জাগরণ/জাতীয়শোক/এসএসকে/কেএপি