• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১৩ আশ্বিন ১৪২৮
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৭, ২০২১, ১২:৫১ এএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ৭, ২০২১, ১২:৫২ এএম

অসামাজিক আচরণ শনাক্ত করতে সিঙ্গাপুরের সড়কে রোবট

অসামাজিক আচরণ শনাক্ত করতে সিঙ্গাপুরের সড়কে রোবট
সংগৃহীত ছবি

অসামাজিক আচরণ শনাক্ত এবং সচেতনতা তৈরি করতে পরীক্ষামূলকভাবে জনসমাগমপূর্ণ এলাকায় রোবটের টহল শুরু করেছে সিঙ্গাপুর।

বিশ্বের অন্যতম নজরদারি সরঞ্জামের ব্যবহারকারী দেশটিতে রোবটের মাধ্যমে মানুষের আচরণ শোধরানোর এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯)—  এর সুরক্ষাবিধির লঙ্ঘন, নিষিদ্ধ এলাকায় ধূমপান এবং ভুলভাবে বাইসাইকেল পার্কিংয়ের মতো খারাপ আচরণ শনাক্ত করতে প্রাথমিকভাবে দু’টি রোবটের টহল চালু করেছে দেশটি।

সোমবার (৬ সেপ্টেম্বর) দেশটির হোম টিম সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলোজি এজেন্সি বিবৃতিতে এসব তথ্য জানিয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, জাভিয়ার নামের ওই দু’টি টহল রোবটে বসানো হয়েছে ক্যামেরা; যা খারাপ সামাজিক আচরণ শনাক্ত করবে এবং সেই অনুযায়ী কমান্ড এবং নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্রে রিয়েলটাইম সংকেত পাঠিয়ে দেবে।

সিঙ্গাপুরের মধ্যাঞ্চলে পদচারী বেশি রয়েছে, এমন একটি এলাকায় রোবট জাভিয়ারের পরীক্ষা চালানো হচ্ছে। সংস্থাটি বলেছে, তিন সপ্তাহের পরীক্ষামূলক টহলের সময় রোবট দু’টি নজরদারি চালানোর জন্য ব্যবহৃত হবে। এ সময় তারা মানুষকে সচেতন করতে ভুল এবং দুর্বল সামাজিক আচরণ শনাক্ত করার পর সঠিক তথ্য প্রদর্শন করবে।

সংস্থাটির একজন মুখপাত্র বলেছেন, পরীক্ষামূলক টহলের সময় রোবট দু’টিকে আইন প্রয়োগের জন্য ব্যবহার করা হবে না। রোবট জাভিয়ার মোতায়েন সরকারি কর্মকর্তাদের সহায়তা করবে।

পাশাপাশি পায়ে হেঁটে টহল দেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় জনবল হ্রাস এবং অভিযানের দক্ষতার উন্নতি ঘটাবে। রয়টার্স।

জাগরণ/এমএ