• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০২১, ১৪ মাঘ ১৪২৭
প্রকাশিত: নভেম্বর ২৯, ২০২০, ১২:০০ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : নভেম্বর ২৯, ২০২০, ১২:১৪ পিএম

লিভারপুলের কপাল পোড়াল ভিএআর

লিভারপুলের কপাল পোড়াল ভিএআর
স্পট কিক থেকে প্যাসকাল গ্রব গোল করায় হতাশার ড্র নিয়ে লিভারপুল মাঠ ছাড়ে। ফটো: রয়টার্স

মোহামেদ সালাহ ও সাদিও মানের দুটি গোল ভিএআরের সাহায্যে বাতিল করেছে রেফারি। ব্রাইটনের পক্ষে যে পেনাল্টি ভিএআরের মাধ্যমে উপহার দিয়েছেন, সেটি নিয়ে রয়েছে বিতর্ক। আর তাতেই দুর্ভাগ্যজনকভাবে ১-১ গোলের ড্র নিয়ে মাঠ ছেড়েছে অলরেডরা।

শনিবার ব্রাইটনের মাঠে অনুষ্ঠিত ম্যাচে মূল দলের অনেক খেলোয়াড়কে বিশ্রামে রেখেছিলেন লিভারপুল কোচ জুর্গেন ক্লপ। পয়েন্ট খোয়ানোর ম্যাচে লিভারপুলের ইনজুরির তালিকা লম্বা হয়েছে। জেমস মিলনার দ্বিতীয়ার্ধে চোট নিয়ে মাঠ ছেড়েছেন।  

২০ মিনিটের মাথায় পেনাল্টি পেয়ে যায় স্বাগতিকরা। প্রতিপক্ষের এক খেলোয়াড়কে নিজেদের বক্সে ফেলে দেন লিভারপুলের নেকো উইলিয়ামস। কিন্তু স্পট কিক কাজে লাগাতে পারেননি ব্রাইটনের মিডফিল্ডার মুপে।  

৩৪ মিনিটে গোল করে লিভারপুলকে এগিয়ে দিয়েছিলেন মোহামেদ সালাহ। কিন্তু ভিএআর অতি ক্ষুদ্র ব্যবধানে সালাহকে এগিয়ে থাকতে দেখায় অফসাইডের কারণে গোল বাতিল হয়ে যায়। 

৬০ কাঙ্ক্ষিত গোলের দেখা পায় লিভারপুল। প্রতিপক্ষের ছোট ডি-বক্সের সামনে থাকা দিয়োগো জোতার দিকে বল পাঠিয়ে দেন সালাহ। রক্ষণের জটলা থেকেই দুইজন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে দারুণ দক্ষতায় বল জালে জড়িয়ে দেন এই পর্তুগিজ স্ট্রাইকার। 

সালাহর বদলি খেলোয়াড় হিসেবে নামা সাদিও মানে ৮৪ মিনিটে হেডে গোল করেছিলেন। সেটাও বাতিল করে দিয়েছে ভিএআর। 

নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে ডি-বক্সের ভেতর অ্যান্ড্রু রবার্টসন পেছন থেকে ড্যানি ওয়েলবেকের পায়ে আঘাত করেছিলেন। ভিএআরের সাহায্যে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দেন রেফারি। যদিও রিপ্লেতে দেখা গেছে, লাথিটা ইচ্ছে করে মারেননি রবার্টসন। তাই পেনাল্টি দেয়ার সেটি জন্য যথেষ্ট ছিল কি না, তা নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। স্পট কিক থেকে প্যাসকাল গ্রব গোল করে ব্রাইটনকে সমতায় ফেরান। এর আগে পেনাল্টি নিতে দেরি করানোর কারণে হলুদ কার্ড দেখেন লিভারপুলের গোলরক্ষক অ্যালিসন বেকার।

এই ড্রয়ের পরও অবশ্য ১০ ম্যাচে ২১ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে লিভারপুল। টটেনহ্যাম ২০ পয়েন্ট নিয়ে আছে দুইয়ে। ১৮ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে চেলসি। 

এসইউ