• ঢাকা
  • শনিবার, ১৫ মে, ২০২১, ১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮
প্রকাশিত: মে ৩, ২০২১, ১২:৩০ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : মে ৩, ২০২১, ১২:৩৫ পিএম

জয়শূন্য টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের লজ্জা বাংলাদেশের

জয়শূন্য টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের লজ্জা বাংলাদেশের

গতকাল পাল্লেকেলেতে সিরিজ নির্ধারণী টেস্টের চতুর্থ দিন শেষে বাংলাদেশের হাতে ছিল পাঁচ উইকেট, স্কোরবোর্ডে ছিল ১৭৭ রান। সেখান থেকে আজ দিন শুরু করা লিটন দাস ও মেহেদি হাসান মিরাজ কেউই পারেননি থিতু হতে। ফলাফল সিরিজের শেষ টেস্টে ২০৯ রানে জিতেছে শ্রীলঙ্কা, সঙ্গে সিরিজও জিতেছে ১-০ ম্যাচ ব্যবধানে। 

প্রথম টেস্টের নিষ্প্রাণ উইকেট যেন দ্বিতীয় টেস্টেও ধরা দিয়েছিল। তবে সেটা শুধুই প্রথম দিনে, আর সেই সুযোগকেই কাজে লাগিয়েছে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা। টসে জিতে  ব্যাটিং নেওয়ার পর তারা বেশ স্বাচ্ছন্দ্যেই রান তুলেছে। কিন্তু সময় যত গড়িয়েছে, উইকেট তত বোলারদের সাহায্য করেছে। স্পিনাররা টার্ন পেয়েছেন, কাজে লাগিয়েছেন উইকেটকে। 

সেখানেই বিপদে পড়ে বাংলাদেশ। তৃতীয় দিনের প্রথম সেশনে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৯৩ রান করে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানায়। কিন্তু তিন সেশনও টিকতে পারেনি বাংলাদেশ। ২৫১ রানেই সব কটি উইকেট হারিয়ে ইনিংস শেষ করে তারা। ২৪২ রানের লিড নিয়ে শুরু করা দ্বিতীয় ইনিংস তারা ৪৩৭ রানে নিয়ে যায় চতুর্থ দিন। এরপর বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা ২২৭ রান তুলতেই সব কটি উইকেট হারিয়েছে। 

আজ পঞ্চম দিনে ৫১তম ওভারের দ্বিতীয় বলেই প্রবীণ জয়বিক্রম ফিরিয়েছেন লিটন দাসকে। এরপর একে একে ৬২তম ওভারে ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা ফিরিয়েছেন তাইজুল ইসলামকে, তাসকিন আহমেদকে ৭০তম ওভারে ফিরিয়েছেন রমেশ মেন্ডিস। পরের ওভারের তৃতীয় বলেই এক প্রান্ত আগলে রাখা মেহেদি হাসান মিরাজকে শিকার করেছেন জয়নবিক্রম। শেষ বলে আবু জায়দ রাহীকে লেগ বিফোরের ফাঁদে ফেলে বাংলাদেশের কফিনে শেষ পেরেকটি ঠুকে দিয়েছেন জয়বিক্রম, সঙ্গে নিয়েছেন পাঁচ উইকেট। 

অভিষেক সিরিজে ১০ উইকেট নিয়ে রেকর্ড গড়া জয়বিক্রম হয়েছেন ম্যাচসেরা। আর দলকে স্বস্তির রান সংগ্রহে মুখ্য ভূমিকা রাখায় অধিনায়ক দিমুঠ করুণারত্নে হয়েছেন সিরিজসেরা খেলোয়াড়। আর বাংলাদেশ ফিরছে পুরো টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে একটি জয়ের দেখাও না পাওয়ার লজ্জা নিয়ে।