• ঢাকা
  • শনিবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১, ০৪:৩৭ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১, ১০:৩৭ এএম

আবারো আইসিইউতে পেলে

আবারো আইসিইউতে পেলে
মেয়ে কেলে নাসিমেন্তের সঙ্গে হাসপাতালে এক ফ্রেমে বন্দি পেলে। সংগৃহীত

ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি ফুটবলার পেলের শরীরে সম্প্রতি অস্ত্রোপচার করে কোলন টিউমার অপসারণ করা হয়েছে। তবে সুস্থ হয়ে বাসায় ফেরার সাত দিনের মাথায় গত শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) আবারও তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে ; রাখা হয়েছে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ)। এমন খবরই দিয়েছে রয়টার্স ও ব্রাজিলের সংবাদ মাধ্যম। 

জানা যায়, অ্যাসিড রিফ্লাক্সের কারণে ৮০ বছর বয়সী পেলে সাও পাওলোর আলবার্ট আইনস্টাইন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। সেখানে আইসিইউতে রাখা হয়েছে ‘ফুটবলের রাজা’ পেলেকে। তবে এখন পর্যন্ত স্থিতিশীলই আছে তার শারীরিক অবস্থা। স্বাস্থ্য পর্যবেক্ষণে রাখতেই সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে পেলেকে আইসিইউতে নেয়া হয়েছে।

পেলের মেয়ে কেলে নাসিমেন্ত জানিয়েছেন, তার বাবার অবস্থা বর্তমানে স্বাভাবিক রয়েছে। তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী অনেকেই আমার বাবার অসুস্থতা নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছেন। তাদের আর অস্থিরতার মধ্যে রাখতে চাই না। তিনি স্বাভাবিক আছেন। স্বাভাবিকভাবেই সেরে উঠছেন।

ইনস্টাগ্রামে এমন বার্তার সঙ্গে হাসপাতালে বাবার সঙ্গে একটি ছবিও আপলোড করেছেন কেলে। তিনি বলছেন, ওই মুহূর্তেই ছবিটি তোলা হয়েছিল।

এর আগে চলতি মাসের শুরুতে শারীরিক কিছু সমস্যা দেখা দেয়ায় নিয়মিত পরীক্ষার অংশ হিসেবে সাও পাওলোর ওই হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল পেলেকে। সেখানেই তার বৃহদান্তে টিউমার ধরা পড়ে এবং এরপর অস্ত্রোপচার করা হয়। গত সপ্তাহে তাকে আইসিইউ থেকে জেনারেল রুমে নেয়া হয়েছিল। 

পেলে লম্বা সময় ধরে নিতম্বের সমস্যায় ভুগছেন এবং ঠিকমতো হাঁটতে পারেন না। তা ছাড়া করোনার কারণে তিনি জনসম্মুখে আসেন না বললেই চলে। তার সান্তোসের বাড়ির আঙ্গিনায় গুটিকয়েকবার দেখা গেছে তাকে।

পেলে ব্রাজিলের হয়ে ৯২ ম্যাচ খেলেছিলেন। গোল করেছিলেন ৭৭টি। যা ব্রাজিলের হয়ে করা যেকোনো খেলোয়াড়ের সর্বোচ্চ।