• ঢাকা
  • শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৪ আশ্বিন ১৪২৭
প্রকাশিত: জুলাই ৩, ২০২০, ১০:০২ এএম
সর্বশেষ আপডেট : জুলাই ৩, ২০২০, ১০:০২ এএম

কানপুরে দুষ্কৃতীদের সঙ্গে এনকাউন্টারে মৃত্যু ৮ পুলিশকর্মীর

জাগরণ ডেস্ক
কানপুরে দুষ্কৃতীদের সঙ্গে এনকাউন্টারে মৃত্যু ৮ পুলিশকর্মীর
আট পুলিশকর্মীর মৃত্যুর পর পার্শ্ববর্তী জেলা থেকে আনা হয়েছে বিশাল পুলিশবাহিনী ● আনন্দবাজার

দুষ্কৃতীদের ধরতে গ্রামে গিয়েছিল পুলিশ। কিন্তু সেখানে পৌঁছতেই পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালাতে শুরু করে দুষ্কৃতীরা। যার জেরে এক ডেপুটি পুলিশ সুপার, তিন সাব ইনস্পেক্টর, চার কনস্টেবল-সহ মোট আট জন পুলিশ কর্মীর মৃত্যু হয়েছে। চার জন আহত অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। পুলিশের পাল্টা গুলিতে মৃত্যু হয়েছে অন্তত তিন দুষ্কৃতীর।

বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) দিবাগত গভীর রাতে এই ঘটনা ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের কানপুরের বিকারু গ্রামে, যা লখনউ থেকে ১৫০ কিলোমিটার দূরে। পুলিশকর্মীদের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

পুলিশ সূত্রে খবর, বিকাশ দুবে নামে এক কুখ্যাত দুষ্কৃতীকে গ্রেফতার করতে বিকারু গিয়েছিল পুলিশের ওই দলটি। বিকাশের নামে ৬০টির বেশি মামলা রয়েছে। সম্প্রতি এক হত্যা মামলায় নাম জড়ানোয় তাকে ধরতে যায় পুলিশ। কিন্তু গ্রামে ঢোকার মুখে রাস্তা ছিল বন্ধ। জেসিবি বসিয়ে পথ আটকে দেয়া হয়েছিল। যার জেরে গাড়ি থেকে নেমে পুলিশ গ্রামে ঢুকতেই এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে দুষ্কৃতীরা।

পুলিশ জানায়, বাড়ির ছাদে উঠে তিন দিক থেকে পুলিশের ওপর গুলি চালানো হয়। তাতেই মৃত্যু হয় আট পুলিশকর্মীর। পুলিশের পাল্টা গুলিতে বিকাশের তিন সঙ্গীর মৃত্যু হলেও বিকাশ এখনও অধরা।

উত্তরপ্রদেশের ডিজিপি এইচসি অবস্তী জানায়, গ্রামে ঢুকতেই বাড়ির ছাদ থেকে পুলিশের ওপর গুলি চালাতে শুরু করে দুষ্কৃতীরা। তাতেই ওই পুলিশকর্মীদের মৃত্যু হয়েছে। বিকাশের বিরুদ্ধে অভিযানের খবর পেয়ে পরিকল্পনা করেই এই দুষ্কৃতীরা হামলা চালিয়েছে বলে দাবি ওই পুলিশ অফিসারের। কানপুরের এডিজি জেএন সিংহ জানিয়েছেন, পরিস্থিতির মোকাবিলায় কনৌজ ও কানপুরের দেহাত থেকে বিশাল পুলিশবাহিনী নিয়ে আসা হয়েছে। আনন্দবাজার।

কেএপি

আরও পড়ুন