• ঢাকা
  • শনিবার, ০৬ জুন, ২০২০, ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
প্রকাশিত: এপ্রিল ৮, ২০২০, ০৪:১৮ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : এপ্রিল ৮, ২০২০, ০৪:২৮ পিএম

কঠোর অবস্থানে নারায়ণগঞ্জ প্রশাসন

নারায়ণগঞ্জ সংবাদদাতা
কঠোর অবস্থানে নারায়ণগঞ্জ প্রশাসন
কঠোর অবস্থানে আইন-শৃঙ্খলাবাহিনী ● সংগৃহীত

কোভিড-১৯ এ সংক্রমণে দেশের সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত জেলা নারায়ণগঞ্জকে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) ঝুঁকিপূর্ণ (হটস্পট) হিসেবে চিহ্নিত করায় বুধবার (৮ এপ্রিল) থেকে পুরো জেলাকে লকডাউন করেছে স্থানীয় প্রশাসন। এতে প্রায় জনশূন্য হয়ে পড়েছে ব্যস্ত শহর নারায়ণগঞ্জ।

নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান গণমাধ্যমকে জানান, মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) রাত থেকে কাঁচাবাজারের কয়েকটি দোকান খোলা দেখা গেছে। তবে অন্যান্য দোকান বন্ধ রয়েছে।

সরকারের আদেশ অনুসারে সবকিছু বন্ধ রয়েছে এবং আমরা এ ব্যাপারে কঠোর অবস্থানে রয়েছে বলে জানান তিনি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক কর্মকর্তা করে জানান, সদর, সিদ্ধিরগঞ্জ ও ফতুল্লাসহ কয়েকটি অঞ্চল কোভিড-১৯ সংক্রমণের সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ জায়গা।

মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) রাতে আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতরের (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানান হয়, করোনাভাইরাস প্রতিরোধ কার্যক্রম জোরদার করার লক্ষ্যে বুধবার (৮ এ্রপ্রিল) থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জ জেলাকে অবরুদ্ধ ঘোষণা করা হলো। তবে জরুরি পরিসেবা যেমন চিকিৎসা, খাদ্যদ্রব্য সরবরাহ ইত্যাদি এর আওতাবহির্ভূত থাকবে।

আইএসপিআর পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবদুল্লাহ ইবনে জায়েদ স্বাক্ষরিত সই আরও বলা হয়, বেসামরিক প্রশাসন, সশস্ত্র বাহিনী ও আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী স্থানীয় জন-প্রতিনিধিদের সাথে সমন্বয়ের মাধ্যমে সম্মিলিতভাবে কাজ করবে।

মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) পর্যন্ত করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৭ জনে। দেশে নতুন করে ৪১ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে, যার মধ্যে ১৫ জনই নারায়ণগঞ্জের। দেশে করোনা আক্রান্ত মোট রোগী বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৬৪ জনে।

এসএমএম