• ঢাকা
  • বুধবার, ২৩ জুন, ২০২১, ৯ আষাঢ় ১৪২৮
প্রকাশিত: মে ১৩, ২০২১, ০২:২০ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : মে ১৩, ২০২১, ০২:২০ পিএম

শেষ মুহূর্তে পাটুরিয়া ঘাটে ঘরমুখী মানুষের চাপ

শেষ মুহূর্তে পাটুরিয়া ঘাটে ঘরমুখী মানুষের চাপ

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে শেষ মুহূর্তে ঈদে ঘরে ফেরা মানুষের ঢল নেমেছে। এ নৌরুটে সব ফেরি চলাচল করায় যাত্রীদের স্বস্তি ফিরেছে। বৃহস্পতিবার (১৩ মে) ঘাট এলাকা এমন দৃশ্য দেখা গেছে। 

সরেজমিনে দেখা যায়, ফেরিঘাটে নোঙর করার পর মানুষের চাপে ঠাঁই নেই ফেরিতে। নেই স্বাস্থ্যবিধির কোনো বালাই। ঘাটে নেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কোনো কড়াকড়িও। পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া ও আরিচা-কাজির হাট নৌরুটে ছোট-বড় ২০ ফেরি চলাচল করছে। কয়েক গুণ বেশি ভাড়া দিয়ে ঘাটে এসে গাদাগাদি করে ফেরিতে পার হচ্ছেন মানুষ।

রিফাত নামের একজন যাত্রী জানান, সবার সঙ্গে ঈদে বাড়িতে যাচ্ছি। রাস্তায় কোনো ভোগান্তিতে পাইনি। চার গুণ বেশি ভাড়া নিয়েছেন, তাতে সমস্যা নেই। ঘাটে এসে মানুষের ঢল দেখলেও ফেরি থাকায় কোনো ভোগান্তি লাগছে না। তবে এমন অবস্থায় স্বাস্থ্যবিধি মানা যাচ্ছে না।

মল্লেস নামের পোশাক কারখানার শ্রমিক ঈদে যাচ্ছেন বাড়িতে। সঙ্গে বাবা-মা ও স্ত্রী সন্তান নিয়ে পাটুরিয়া ঘাটে আসছেন পিকআপে। কথা হলে তিনি জানান, নবীনগর থেকে ১ ঘণ্টায় ঘাটে আসছেন। যাচ্ছেন মাগুরায়। একটু কষ্ট হলেও তা ঈদের জন্য মানা যায়। এতে সে স্বস্তি প্রকাশ করেন।

ঘাটের ব্যবস্থাপক মো. সালাম হোসেন জানান, মানুষের দুর্ভোগ দূর-করার জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া ও আরিচা-কাজির হাট নৌরুটে ২০টি ফেরি চলাচল করছে। স্বাস্থ্যবিধি দেখার দায়িত্ব আমাদের নেই।