• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
প্রকাশিত: ডিসেম্বর ৮, ২০২৩, ১২:০৪ এএম
সর্বশেষ আপডেট : ডিসেম্বর ৮, ২০২৩, ১২:০৪ এএম

‘চলতি মাসে রিজার্ভ আর কমবে না’

‘চলতি মাসে রিজার্ভ আর কমবে না’

প্রতিমাসেই কমছে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ। তবে এবার রিজার্ভ নিয়ে কিছুটা সুখবর দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। চলতি ডিসেম্বর মাসে দেশের রিজার্ভ আর কমবে না, বরং কিছুটা বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মেজবাউল হক।

সম্প্রতি গণমাধ্যমের কাছে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।

রিজার্ভ না কমার কারণ হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংক মুখপাত্র উল্লেখ্য করেছেন বিদেশি ঋণ ও সহায়তার বড় অংক আসবে ডিসেম্বরে।

জানা গেছে, ডিসেম্বরে বড় অংকের বিদেশি ঋণ ও বাজেট–সহায়তা আসবে। চলতি মাসে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক থেকে বাজেট–সহায়তার ৪০ কোটি ডলার যুক্ত হবে রিজার্ভে । এ ছাড়া ১২ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল (আইএমএফ) তাদের পর্ষদে ঋণের অনুমোদন দেওয়ার কথা।

অনুমোদিত হলে পরের দিনই দ্বিতীয় কিস্তির ৬৮ কোটি ডলার রিজার্ভে যুক্ত হবে। ফলে চলতি মাসে মোট ১০৮ কোটি ডলার আসতে পারে বিদেশি সংস্থাগুলো থেকে।

মুখপাত্র মেজবাউল হক আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, চলতি ডিসেম্বরেই এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক (এডিবি) ও আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল (আইএমএফ) থেকে সহায়তা ও ঋণ বাবদ ১ মিলিয়ন ডলারের বেশি পাবে বাংলাদেশ ব্যাংক। আর তাতেই প্রতিদিনের ডলার বিক্রির চাপ সামাল দেওয়ার পাশাপাশি রিজার্ভ আরও শক্তিশালী হবে।

রাসায়নিক সার, জ্বালানিসহ সরকারি আমদানির জন্য নিয়মিত ডলার বিক্রি করতে হচ্ছে বাংলাদেশ ব্যাংককে। মঙ্গলবার দিন শেষে বাংলাদেশ ব্যাংকের গ্রস রিজার্ভ ছিল ২ হাজার ৪৭০ কোটি ডলার। 

তবে আইএমএফের হিসেব পদ্ধতিতে রিজার্ভ ১ হাজার ৯০০ কোটি ডলারের মতো। চলতি অর্থবছরে প্রায় সাড়ে ৫০০ কোটি ডলার বিক্রি করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

জাগরণ/অর্থনীতি/কেএপি