• ঢাকা
  • শনিবার, ২৮ মে, ২০২২, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
প্রকাশিত: ডিসেম্বর ৩০, ২০২১, ১২:৪৩ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : ডিসেম্বর ৩০, ২০২১, ০৬:৪৩ এএম

ফুলবাড়ীতে তীব্র শীত, কনকনে বাতাস ও গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি

ফুলবাড়ীতে তীব্র শীত, কনকনে বাতাস ও গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি
ছবি- জাগরণ।

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি// 
দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে প্রচন্ড শীত কনকনে বাতাসের সাথে সাথে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টিপাতের কারণে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। চরম দুর্ভোগে পড়েছেন শ্রমজীবীরা।

এদিন সকাল ৬ টার দিকে দিনাজপুরের সরবনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১২.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ সময় বাতাসের আদ্রতা ছিল ৯৫ শতাংশ। দেশের সরবনিম্ন তাপমাত্রা শ্রীমঙ্গলে ১১.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে ৫.২ মিলিমিটার। যা দেশের সর্বোচ্চ।

গত বুধবার (২৯ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ১০টা থেকে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়ে  বৃহস্পতিবার (এ সংবাদ লেখা পর্যন্ত) পর্যন্ত অব্যাহত ছিল। প্রচন্ড শীত আর কনকনে বাতাসের সাথে বৃষ্টির কারণে জনজীবন কাহিল হয়ে পড়েছে। দুপুর ১২ টা পর্যন্ত পৌরশহরের অধিকাংশ দোকানপাট বন্ধ ছিল। প্রায় জনশূন্য ছিল রাস্তাঘাট। প্রয়োজন ছাড়া মানুষ ঘরের বাইরে বের হয়নি। সরকারি দপ্তরগুলোতে সেবাগ্রহীদের উপস্থিত ছিল না বললেই চলে। পৌর বাজারে কিছু ক্রেতাদের উপস্থিতিও ছিল অন্যদিনের তুলনায় একেবারেই নগণ্য।

ফুলবাড়ী পৌর শহরের রিকশা চালক আফজাল হোসেন বলেন, প্রচন্ড শীতের সাথে বৃষ্টির কারণে রিকশা বের করা যায়নি। তাই পালের হোটেলে বসে চা খাচ্ছি। রিকশা না চালালে দিনটা কাটবে কিভাবে সেটাও চিন্তা করছি। বৃষ্টির মধ্যে রিকশা বের করেও তো লাভ হবে না। কারণ রাস্তায় লোকজনও তো নেই। 

কুলি শ্রমিক জায়েদুল ইসলাম বিভিন্ন ট্রান্সপোর্টের মালামাল ট্রাকে এসেছে। কিন্তু বৃষ্টির কারণে নামাতে পারছি না। এতে করে দিনের আয় রোজগার নষ্ট হয়ে গেছে। বাজারঘাট করবো কিভাবে সেটিই এখন চিন্তার বিষয়। 

ক্ষেতমজুর শফিকুল ইসলাম বলেন, এমনিতেই শীতের কারণে জমিতে কাজ করা যাচ্ছে না। তার ওপর আবার বৃষ্টি শুরু হয়ে গেছে। এতে করে আমরা পুরোপুরি বেকার হয়ে গেছি। আয় রোজগারের পথ বন্ধ হওয়ায় পরিবারের লোকজনের খাবার নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছি। 

দিনাজপুর আবহাওয়া অধিদপ্তরের ইনচার্জ মো. তোফাজ্জেল হোসেন জানান, বৃহস্পতিবার সকাল ৬ টার দিকে দিনাজপুরের সরবনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১২.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ সময় বাতাসের আদ্রতা ছিল ৯৫ শতাংশ। দেশের সরবনিম্ন তাপমাত্রা শ্রীমঙ্গলে ১১.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে ৫.২ মিলিমিটার। যা দেশের সর্বোচ্চ। 

 

এসকেএইচ//