• ঢাকা
  • শনিবার, ২০ জুলাই, ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১
প্রকাশিত: আগস্ট ৯, ২০২৩, ১২:০৯ এএম
সর্বশেষ আপডেট : আগস্ট ৯, ২০২৩, ১২:০৯ এএম

বাঁধ ভেঙে ২০ গ্রাম প্লাবিত

বাঁধ ভেঙে ২০ গ্রাম প্লাবিত
ছবি ● সংগৃহীত

কয়েক দিনের টানা বৃষ্টি আর ভারতের উজান থেকে নেমে আসা ঢলে ফেনীর মুহুরী নদীর ফুলগাজী ও পরশুরামের তিনটি স্থানে বাঁধ ভেঙে গেছে। এতে প্লাবিত হয়েছে কমপক্ষে ২০টি গ্রাম।

পরশুরাম পয়েন্টে মঙ্গলবার নদীর পানি বিপৎসীমার ২৮ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হলেও বাঁধের অংশ দিয়ে লোকালয়ে পানি প্রবেশ অব্যাহত আছে। এতে নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হচ্ছে।

গ্রামবাসী জানান, সোমবার ভোরে বাঁধের অংশে ভাঙন দেখা দিলে গাছ কেটে ও মাটি দিয়ে ভাঙন রোধের চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়েছেন তারা। পানির প্রচণ্ড বেগে বাঁধের আশপাশের উত্তর বরইয়া, বনিকপাড়া, বিজয়পুর, কিসমত বিজয়পুর, বসন্তপুর, জগতপুর এবং পরশুরামের পশ্চিম অলকা, পূর্ব অলকা, নোয়াপুর, অনন্তপুর, চিথলিয়া, ধনীকুন্ডা, রামপুর, রতনপুর, দূর্গাপুর, জয়পুর, ঘনিয়ামোডা, সাতকুচিয়াসহ বেশকিছু গ্রামে বানের পানি ঢুকে পড়ে।

তলিয়ে গেছে আমনের কয়েকশ হেক্টর জমি। ভেসে গেছে পুকুরের মাছ। ঝুঁকিতে আছে ১২২ কিলোমিটারের বাঁধের বেশ কয়েকটি স্থান। নদীর উভয়পাড়ের ১২২ কিলোমিটার বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের তীরবর্তী এলাকার কয়েকশ পরিবারের হাজার হাজার মানুষের মানবেতর দিন কাটছে।

জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী রাশেদ শাহরিয়ার বলেন, মাটির বাঁধ এমনিতেই ঝুঁকিপূর্ণ। এরপর ইঁদুরসহ বিভিন্ন প্রাণী ফুটো করে ফেলে। আর ওই ফুটোতে পানির চাপে বাঁধ ভেঙে যায়। এছাড়া নদীর ধারণক্ষমতাও কম। নদীর কয়েকটি স্থানে আছে ৯০ ডিগ্রির মতো বাঁক। নতুন প্রকল্পের মাধ্যমে টেকসই বাঁধ নির্মাণের পরিকল্পনা প্রক্রিয়াধীন।

জাগরণ/পরিবেশ/এসএসকে