• ঢাকা
  • বুধবার, ২৫ মে, ২০২২, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
প্রকাশিত: এপ্রিল ৪, ২০২২, ১১:৪২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : এপ্রিল ৪, ২০২২, ০৫:৪২ পিএম

চলতি মাসে দুই থেকে তিনটি তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস

চলতি মাসে দুই থেকে তিনটি তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস

তীব্র গরমের কবলে পড়তে যাচ্ছে দেশ। চলতি মাসেই তাপমাত্রার পারদ ছাড়িয়ে যেতে পারে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এতে করে রোজা রাখা মুসল্লিদের কষ্ট বাড়তে পারে। 

আবহাওয়া অধিদপ্তরের দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাস অনুযায়ী, চলতি মাসে দেশের ওপর দু’তিনটি মৃদু থেকে মাঝারি তাপদাহ বয়ে যেতে পারে। 

এর ফলে দেশেরে কোথাও ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস, আবার কোথাও ৩৮ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে উঠতে পারে তাপমাত্রার পারদ।

সেই সঙ্গে তীব্র কালবৈশাখী ও বজ্রসহ ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। দেশের কয়েক জেলায় স্বল্প সময়ের জন্য আকস্মিক বন্যাও দেখা দিতে পারে।

চলতি মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুইটি নিম্নচাপ সৃষ্টির আশঙ্কা রয়েছে উল্লেখ করে এক আবহাওয়া প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, একটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে।

বেশ কিছুদিন ধরেই বাড়ছে গরমের তীব্রতা। আবহাওয়ার ক্যালেন্ডার অনুযায়ী বছরের উষ্ণতম মাস এপ্রিল। প্রতি বছর এই সময় তীব্র গরমে মানুষের নাভিশ্বাস উঠে। এবারও ব্যাত্যয় নেই।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাস অনুযায়ী, চলতি মাসে দেশের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি মাত্রার দু’তিনটি তাপদাহ বয়ে যেতে পারে। 

আবহাওয়াবিদ খন্দকার হাফিজুর রহমান বলেন, মৃদু তাপদাহে তাপমাত্রা ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি ও মাঝারি তাপদাহে তাপমাত্রা পৌঁছাতে পারে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।

স্বস্তির ব্যাপার হলো গরমের তীব্রতা কিছুটা কমাবে কালবৈশাখী ঝড়। হাফিজুর জানান, এপ্রিলে তীব্র মাত্রার বেশ কয়েকটি কালবৈশাখী হতে পারে। ঝড় বেশি হবে উত্তর পশ্চিম ও মধ্যাঞ্চলে।

মার্চে স্বাভাবিকের তুলনায় প্রায় ৮৬ শতাংশ বৃষ্টি কম হয়েছে। আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, এপ্রিলে এসে দেশের অনেক জায়গাতেই বিচ্ছিন্নভাবে বৃষ্টি হচ্ছে। 

এপ্রিল মাসে দিনের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে সামান্য বেশি এবং রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিক থাকতে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

জাগরণ/পরিবেশ/কেএপি