• ঢাকা
  • রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর, ২০২২, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
প্রকাশিত: অক্টোবর ১১, ২০২২, ১১:৪৯ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ১১, ২০২২, ০৫:৪৯ পিএম

পুরুষ ছাড়াই হজ-ওমরাহ করতে পারবেন নারীরা

পুরুষ ছাড়াই হজ-ওমরাহ করতে পারবেন নারীরা
প্রতীকী ছবি

সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী ড. তাওফিক আল-রাবিয়াহ জানিয়েছেন, এখন থেকে হজ অথবা ওমরাহ পালনের ক্ষেত্রে নারীদের সঙ্গে মাহরাম নেয়ার প্রয়োজন নেই।

সৌদি মন্ত্রীর এ ঘোষণার ফলে নারী হজযাত্রীদের সফর সঙ্গী হিসেবে মাহরাম বাধ্যতামূলক কি না- এ বিষয়ে চলা বিতর্কের অবসান হলো। একই সঙ্গে সৌদি মন্ত্রী ওমরাহ ভিসার ক্ষেত্রে কোটা বা নির্দিষ্ট সংখ্যার বিষয়টিও বাতিল করেন। ফলে বিশ্বের মুসলিম দেশগুলোর জন্য ওমরাহ ভিসা অনুমোদনের কোনো কোটা বা নির্দিষ্ট সংখ্যার সীমা থাকছে না।

মাহরাম শব্দটি আরবি হারাম শব্দ থেকে এসেছে। ইসলামি পরিভাষায় মাহরাম দ্বারা বোঝায়, যাদের বিয়ে করা হারাম বা অবৈধ এবং দেখা করা বা দেখা দেয়া জায়েজ বা বৈধ। পুরুষ ও নারী উভয়ের জন্য মাহরাম ১৪ জন।

সোমবার (১০ অক্টোবর) মিশরের কায়রোতে সৌদি দূতাবাসে এক সংবাদ সম্মেলনে ড. তাওফিক আল-রাবিয়াহ বলেন, ‘যে কোনো ধরনের ভিসা নিয়ে সৌদি আরবে আসা মুসলিমরা ওমরাহ পালন করতে পারবেন। পবিত্র মসজিদুল হারাম ও মসজিদে নববি সফরে আগ্রহী মুসলিমদের জন্য বিভিন্ন সেবায় আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার ও ডিজিটালাইজেশনের উদ্যোগ নিয়েছে সৌদি আরব সরকার। এগুলোর মধ্যে রয়েছে হজ পালনকারীদের জন্য রোবট দিয়ে কিছু সেবা প্রদান।’ সৌদি গেজেট।

জাগরণ/জীবনযাপন/ধর্ম/হজ্বওমরাহ/এমএ