• ঢাকা
  • শনিবার, ২৭ নভেম্বর, ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
প্রকাশিত: অক্টোবর ২৬, ২০২১, ০১:০১ এএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ২৬, ২০২১, ০১:০১ এএম

যে কারণে বেইজিং ম্যারাথন স্থগিত

যে কারণে বেইজিং ম্যারাথন স্থগিত
ফাইল ফটো

করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমণের হার আবারও বেড়ে যাওয়ায় পরবর্তী নির্দেশনা দেয়া পর্যন্ত চীনের বেইজিং ম্যারাথন স্থগিত করেছে প্রশাসন।

দেশটির শীর্ষ স্বাস্থ্য কর্মকর্তা সতর্ক করে বলেছে, আবারও পুরো দেশ জুড়ে করোনা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।

 চীনে এ পর্যন্ত ১১টি প্রদেশে আবারও নতুন করে করোনা ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্তের রেকর্ড পাওয়া গেছে। এই বছরের আগস্টে চীনের নানজিংয়ের সবচেয়ে বেশি করোনার প্রাদুর্ভাব হয়েছে।

তবে দেশটিতে করোনা নিয়ে ‘জিরো-টলারেন্স পদ্ধতি’ কতটা বজায় রাখা সম্ভব হয় ২০২২ সালে শীতকালীন অলিম্পিক পর্যন্ত, তা নিয়ে আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা।

৩১ অক্টোবর ৩০ হাজার মানুষ নিয়ে এই ম্যারাথন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।

ম্যারাথন আয়োজকরা বলেছেন, এই ম্যারাথনের ফলে করোনা ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি রয়েছে। বেশিরভাগ দৌড়বিদ, কর্মী এবং বাসিন্দাদের স্বাস্থ্য এবং সুরক্ষার কথা চিন্তা করে আমরা এই ইভেন্ট বাতিল করেছি।

১৯৮১ সাল থেকে বেইজিং এর এই ম্যারাথন অনুষ্ঠান হয়ে আসছে। দেশটিতে ম্যারাথন অনুষ্ঠানটি সকল বয়সীদের জন্য অনেক বেশি জনপ্রিয়।

চীনে এরই মধ্যে বৃহস্পতিবার প্রায় হাজারের বেশি ফ্লাইট বাতিল করেছে। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে সেখানকার সব স্কুল। একদল পর্যটকদের মাধ্যমে নতুন করে আবার সংক্রমণ শুরু হয়েছে। সেজন্য চীনে গণ পরীক্ষার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। বিবিসি।

জাগরণ/এমএ