• ঢাকা
  • বুধবার, ১৭ আগস্ট, ২০২২, ২ ভাদ্র ১৪২৯
প্রকাশিত: জুন ২৯, ২০২২, ০৪:৩৫ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জুন ২৯, ২০২২, ১০:৩৫ এএম

যে কোচ নেইমারকে উইংয়ে খেলায়, সে একটা গাধা: তিতে

যে কোচ নেইমারকে উইংয়ে খেলায়, সে একটা গাধা: তিতে

তিতে জানালেন যে কোচ নেইমারকে উইংয়ে খেলায়, সে একটা গাধা! আরও একবার বিশ্বকাপ জেতার স্বপ্ন নিয়ে ২০২২ বিশ্বকাপে পা রাখছে ব্রাজিল। সেলেসাওদের এই শিরোপা স্বপ্নের প্রাণভোমরা হিসেবে থাকবেন নেইমার। পিএসজি দলে তবে সেই নেইমারেরই কি-না পায়ের তলা থেকে মাটি সরে যাচ্ছে! তবে ব্রাজিল কোচ তিতে এর পেছনে নেইমারের থেকে কোচের দায় বেশি দেখছেন তিতে।

ক্যারিয়ারজুড়ে বেশ কিছু জায়গায় খেলেছেন নেইমার। ব্রাজিল কোচ তিতে যেমন খেলাচ্ছেন তাকে ফাইনাল প্লেমেকার হিসেবে। এর আগেও তার ভূমিকাটা মোটামুটি একই ছিল ব্রাজিল দলে। ৭৪ গোল করে নেইমার জানান দিচ্ছেন, ভূমিকাটায় ভালোই স্বচ্ছন্দ তিনি।

তবে লেফট উইংয়েও নেইমার পারদর্শী। ২০১৪-১৫ মৌসুমে সাবেক ক্লাব বার্সেলোনা যে শিরোপাত্রয়ী জিতেছিল, তাতে তার অবদান ছিল অনস্বীকার্য। লুইস সুয়ারেজ আর লিওনেল মেসির সঙ্গে সেই দলে নেইমারকে খেলতে হতো লেফট উইংয়ে। এর পরের দুই মৌসুমেও একই জায়গায় খেলে দারুণ পারফর্ম করেছেন তিনি। সদ্যসমাপ্ত মৌসুমে মেসি পিএসজিতে পাড়ি জমানোর পর তার ভূমিকাটা লেফট উইংয়ে চলে গেছে। 

কোচ তিতে জানাচ্ছেন নেইমারকে উইংয়ে খেলালে তার সৃষ্টিশীলতাকেই একটা গণ্ডিতে আবদ্ধ করে দেওয়া হয়। সম্প্রতি সেক্সত্রা এস্ত্রেলা পডকাস্টকে তিনি বলেছেন, ‘সে কোনো সমস্যা সৃষ্টি করছে না, বরং সমস্যার সমাধান সে-ই।’

নেইমারকে ফাইনাল প্লেমেকার হিসেবে খেলালে যে সমস্যাটা সৃষ্টি হয় তা হলো তার বল হারানো। এরপর দলকে প্রতি আক্রমণ হজমের শঙ্কাও বয়ে বেড়াতে হয় বেশ। তবে কোচ তিতে এর ইতিবাচক দিকটা দেখতে চাইলেন। জানালেন, নেইমার এখান থেকে যে সুযোগগুলো গড়ে দেবে, সেটাই তো ম্যাচের ভাগ্য বদলে দেবে!

বললেন, ‘লোকে বলে নেইমার সেখানে খেললে ভুল করবে অনেক বেশি। কিন্তু তার জায়গাটাই এমন, যেখানে সে অনেক বেশি ভুল করবে। কারণ সে যা সৃষ্টি করবে, সেটাই ম্যাচের নির্ণায়ক হয়ে যাবে।’

আর প্রতি আক্রমণ হজমের ভয়ে যদি কোনো কোচ তাকে আক্রমণের মাঝে থেকে সরিয়ে নেন, সে নেহায়েত বোকার হদ্দ। তিনি বলেন, ‘যদি কোনো কোচ নেইমারকে উইংয়ে খেলায়, তাহলে আমি তাকে বলবো, সে একটা গাধা। সেটা তার মতো একটা গুণসম্পন্ন খেলোয়াড়ের সৃষ্টিশীল সত্ত্বাকে অনেকাংশে একটা গণ্ডিতে আটকে দেয়।’

‘সৃষ্টিশীলতা মোটেও ধারাবাহিকতা নয়, বরং এটা ঘটে হঠাৎ, পরিস্থিতিমতো হয়ে যায়। হ্যাঁ, সে অনেক বেশি ভুল করবে, কিন্ত তার সৃষ্টিশীল গুণটার বিকাশ যেখানে সবচেয়ে বেশি ঘটবে, সেখানেই তাকে দরকার।’ 

 

এসকেএইচ//