• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর, ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭
প্রকাশিত: অক্টোবর ২২, ২০২০, ০৯:০৬ এএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ২২, ২০২০, ০৯:০৬ এএম

দাফনের আগে কেঁদে ওঠা শিশুটি অবশেষে মারা গেল 

জাগরণ ডেস্ক
দাফনের আগে কেঁদে ওঠা শিশুটি অবশেষে মারা গেল 
ফাইল ছবি

নবজাতকটিকে যখন দাফনের প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছিল, তখন হঠাৎ করেই করে কেঁদে ওঠে সে। এরপর শিশুটিকে পুনরায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে আসেন বাবা ইয়াসিন। পরে শিশুটিকে হাসপাতালের নবজাতক ইউনিটের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউতে) ভর্তি করা হয়। এ ঘটনা গত ১৬ অক্টোবরের। 

কিন্তু জন্মের ছয় দিনের মাথায় বুধবার (২১ অক্টোবর) রাতে শিশুটিকে পুনরায় মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক। নবজাতকটি ২৬ সপ্তাহ গর্ভে থাকার পর জন্ম নিয়েছিল। 

শিশুটর বাবা ইয়াসিন বলেন, কবরস্থান থেকে হাসপাতালে আনার পর আমার আম্মুর (নবজাতক) অবস্থা ভালোর দিকে যাচ্ছিল। কিন্তু গতকাল রাত সাড়ে ১১টার দিকে মেয়েটি মারা যায়। কী ভাগ্য আমার, এক মেয়েকে হাসপাতাল থেকে দুবার কবরস্থানে নিয়ে যাচ্ছি। আশা দেখলাম, আবার আশা ভেঙে গেল। কবর থেকে বেঁচে ফেরা মেয়ে আমার মারা গেল।

এর আগে ঢামেক হাসপাতালের পরিচালক এ কে এম নাসিরউদ্দিন বলেছিলেন, গত শুক্রবার ভোরে ঢামেক হাসপাতালের গাইনি বিভাগে ইয়াসিনের স্ত্রী শাহিনুর বেগম (২৭) একটি মেয়ে শিশুর জন্ম দেন। পরে তাকে প্রায় এক ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখা হয়। কিন্তু কোনো স্পন্দন ছিল না। সে সময় তাকে মৃত ঘোষণা করা হয়। পরে আবার ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

জাগরণ/এমআর