• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারি, ২০২২, ৫ মাঘ ১৪২৮
প্রকাশিত: নভেম্বর ২৭, ২০২১, ০১:০১ এএম
সর্বশেষ আপডেট : নভেম্বর ২৬, ২০২১, ০৭:০১ পিএম

নির্বাচনী সহিংসতায় ভোলা-টাঙ্গাইলে নিহত ২

নির্বাচনী সহিংসতায় ভোলা-টাঙ্গাইলে নিহত ২
সংগৃহীত ছবি

দেশে চলমান ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনী সহিংসতায় ভোলা ও টাঙ্গাইলে আজ আরও দুজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন কমপক্ষে আরও ৫ জন। ভোলার দৌলতখান উপজেলার মদনপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যদের লক্ষ্য করে সন্ত্রাসীদের হামলায় গুলিবিদ্ধ খোরশেদ আলম টিটু (৩২) মারা গেছেন।

শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) সন্ধ্যা ছয়টায় ভোলা সদর হাসপাতালে তিনি মারা যান।

খোরশেদ আলম ভোলা সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মদনপুর ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন নান্নু বিকেলে সমর্থকদের নিয়ে বিজয় উৎসব করছিলেন। ট্রলারে করে তারা সদরের নাছির মাঝি ঘাটে গেলে প্রতিপক্ষ স্বতন্ত্র প্রার্থী জামাল উদ্দিনের কয়েকজন কর্মী হামলা চালায়। এসময় নান্নুর সমর্থক যুবলীগকর্মী খোরশেদ আলম টিটু গুলিবিদ্ধ হন। ভোলা সদর হাসপাতালে নেয়া হলে তাকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

ভোলা সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা নিরুপম সরকার বলেন, টিটুর মাথায় গুলি লেগে মগজ বের হয়ে ব্যাপক রক্তক্ষরণ হয়েছে। হাসপাতালে পৌঁছানোর আগেই তিনি মারা যান।

দ্বিতীয় ধাপে ১১ নভেম্বর ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. জামাল উদ্দিনকে হারিয়ে তৃতীয়বারের মতো নাছির উদ্দিন চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

টাঙ্গাইলের নাগরপুরের দপ্তিয়র ইউনিয়নে আগামী রোববারের ইউপি নির্বাচন কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের সমর্থকদের দুপক্ষের সংঘর্ষে মারা গেছেন ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি আক্কেল শেখের ছেলে তোতা শেখ। এ সময় আহত ৫ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জাগরণ/এমএ