• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৯, ৩০ কার্তিক ১৪২৬
প্রকাশিত: অক্টোবর ২৬, ২০১৯, ০৫:৩৬ এএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ২৬, ২০১৯, ০৬:১০ এএম

শিল্পী সমিতি নির্বাচন

ভোটে জিতলেন মিশা, হৃদয় জিতলেন মৌসুমী

এস এম সাব্বির খান
ভোটে জিতলেন মিশা, হৃদয় জিতলেন মৌসুমী

 


চলচ্চিত্রের গতানুগতিক ধারা যাই হোক, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র ফেডারেশনের নির্বাচনে শেষ পর্যন্ত খলনায়কের জয়ই নিশ্চিত হলো।

শুক্রবার (২৫ অক্টোবর) টান টান উত্তেজনার মাঝে জোর টক্কর হলো ভোটে।আর তাতে শেষ পর্যন্ত বিজয়ী হলো বাংলা চলচ্চিত্রের খ্যাতিমান খলনায়ক হিসেবে পরিচিত অভিনেতা মিশা সওদাগর ও অভিনেতা জায়েদ খানের নেতৃত্বাধীন মিশা-জায়েদ প্যানেল।

পক্ষান্তরে হেরে গেলেও শিল্পী সমিতির নির্বাচনে চিত্র নায়িকা মৌসুমীর দুঃসাহসি লড়াই, নিঃসন্দেহে এফডিসির ইতিহাসে নারী নেতৃত্বের সরব বিপ্লবের ইতিহাস হয়ে থাকবে বলেই সকলের বিশ্বাস।

বাংলা সিনেমার অন্যতম সফল অভিনেতা ইলিয়াস কাঞ্চনের নেতৃত্বাধীন নির্বাচন কমিশনের প্রকাশিত তথ্য অনুসারে, মাত্র ১২৫ ভোট পেয়ে এবারের নির্বাচনে হেরে গেলেন চিত্র নায়িকা মৌসুমী। অন্যদিকে ২২৭ ভোট পেয়ে আবারও জয়ের মালা উঠলো ঢাকাই চলচ্চিত্রের শক্তিমান অভিনেতা মিশা সওদাগরের গলায়। আর সর্বাধিক ২৮৪ ভোট পেয়ে  সমিতির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে পুনর্নির্বাচিত হলেন জায়েদ খান।

নির্বাচন প্রাককালে আকস্মিকভাবে প্যানেল প্রতিনিধিদের অধিকাংশের পিঠটানসহ নানা জটিলতার সৃষ্টি হলেও পরিস্থিতি সামলে নিয়ে নির্বাচনে অংশ নিতে কঠিন লড়াই চালান নায়িকা মৌসুমী। ক্ষমতাসীন প্যানেলের বিরুদ্ধে তারপরেও একাই লড়ে যান তিনি। অনেকেই ভেবেছিলেন সমিতির প্রথম নারী সভাপতি হিসেবে ইতিহাস সৃষ্টি করবেন মৌসুমিই। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তা আর হয়ে ওঠেনি।

 নায়িকা মৌসুমী ও নন্দিত নৃত্য পরিচালক আজিজ রেজার সঙ্গে কলা-কুশলীদের একাংশ 

এর আগে শুক্রবার (২৫ অক্টোবর) সকাল ৯টা হতে শুরু হয় নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। নির্বাচনী প্রচারণা চলাকালীন প্রার্থীদের স্ব স্ব প্যানেলের নির্বাচনী কার্যক্রমকে ঘিরে টানা কয়েকদিন বেশ উত্তজনা বিরাজ করলেও এদিন একেবারেই শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট দেন শিল্পী ও কলা-কুশলীরা।

ভোটগ্রহন পর্ব শেষে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও খ্যাতিমান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন জানান, ভোটারদের ব্যাপক উপস্থিতি ও বৃষ্টির কারণে নির্ধারিত সময়ের চেয়ে কিছুটা বেশি সময় সং্যোজিত হয় ভোট গ্রহনের জন্য। ফলে বেলা ৫টার পরিবর্তে ভোট চলে ৫টা ৪৪ মিনিট নাগাদ। অবশেষে রাত আনুমানিক সোয়া ১টা নাগাদ নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন।

চিত্র নায়িকা মৌসুমী

এদিন ভোট গ্রহনের একেবারে শেষদিকে ভোট দিতে এফডিসিতে উপস্থিত হন চিত্র নায়ক শাকিব খান। এসময় তিনি ফেডারেশনের মূল ফটকে কয়েকজন সিনিয়র শিল্পীকে ভেতরে প্রবেশকালে বাধা দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করে তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

নির্বাচন কমিশনের তথ্য মতে, ৫টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণের কথা থাকলেও ভোটারদের উপস্থিতি ও বৃষ্টির কারণে সময় বৃদ্ধি করা হয়েছে সাড়ে ৫টা পর্যন্ত। জানা গেছে সকাল ৯টা থেকে বিকাল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত প্রায় ৯০ ভাগ ভোট কাস্ট হয়েছে। এর কিছু সময় পরেই শুরু হয় ভোট গণনার কাজ।অবশেষে রাত আনুমানিক সোয়া ১টা নাগাদ নির্বাচনের ফল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন।

এদিকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচনের ছাড়াই বিজয়ী হিসেবে এসেছে সাংগঠনিক সম্পাদক পদে সুব্রত, দফতর ও প্রচার সম্পাদক পদে জ্যাকি আলমগীর এবং কোষাধ্যক্ষ পদে ফরহাদের নাম।

১১টি কার্যনির্বাহী সদস্য পদের জন্য লড়বেন ১৪ জন অভিনয়শিল্পী। তারা হলেন−অঞ্জনা সুলতানা, রোজিনা, অরুণা বিশ্বাস, আলীরাজ, আফজাল শরীফ, আসিফ ইকবাল, আলেকজান্ডার বো, জেসমিন, জয় চৌধুরী, নাসরিন, বাপ্পারাজ, মারুফ আকিব, রঞ্জিতা ও শামীম খান।

ভোট গ্রহণ ও ফলাফল ঘোষণা প্রসঙ্গে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন জানান, ভোটগ্রহণ শেষে নির্বাচন কমিশন কর্তৃক গণনা ও ফলাফল প্রকাশোত্তর এর বিরুদ্ধে কেউ আপিল করতে চাইলে ২৭ অক্টোবরের মধ্যে যোগাযোগ করতে হবে। এ কাজে আপিল বোর্ডের কাছে ২০০০ টাকা জমা দিতে হবে।নির্বাচনী আপিল বোর্ডের আপত্তির শুনানি ও নিষ্পত্তির তারিখ ২৯ অক্টোবরনির্বাচনী চূড়ান্ত ফল ঘোষণার সাত দিনের মধ্যে বিদায়ী পরিষদ নবনির্বাচিত পরিষদকে দায়িত্ব অর্পণ করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে বলেও তথ্য পাওয়া গেছে।

এসকে