• ঢাকা
  • রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৩১ ভাদ্র ১৪২৬
প্রকাশিত: জুন ৪, ২০১৯, ০৩:৪৯ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : জুন ৪, ২০১৯, ০৩:৪৯ পিএম

ঈদের সাজ

জাগরণ ডেস্ক
ঈদের সাজ

চলছে ঈদের শেষ মুহূর্তের কেনাকাটা। এর মধ্যেই অনেকেরই হয়তো ঈদের পোশাক কেনা হয়েছে। আর পোশাক কেনার পরই ঈদের সাজটা কেমন হবে তা নিয়ে চলছে ভাবনা। যারা সারাবছর খুব একটা সাজেন না, তারাও ঈদের উৎসবমুখর দিনে নিজেকে নতুনভাবে দেখতে চান।

কেননা ঈদ মানেই উৎসব। আর উৎসবে চাই জমকালো সাজ। শুধু নতুন পোশাকের আয়োজনে নয়, সাজেও চাই বৈচিত্র্য। তাই ঈদের আগে সাজগোজে মন দিচ্ছেন অনেকেই। ছোটখাটো বিষয়গুলো জানা থাকলে সাজে আসবে নতুনত্ব।

গতানুগতিক সাজের বাইরে নিজেকে একটু ভিন্নভাবে উপস্থাপন করার ইচ্ছে সবার মনেই কমবেশি জাগে। ঈদের দিন সাধারণত সৌন্দর্যচর্চার কেন্দ্রগুলো বন্ধ থাকে। তাই নিজের সাজটা নিজেকেই করে নিতে হয়। ঘরে আবার থাকে হাজারো কাজ। তাই খুব বেশি পরীক্ষণের দিকে যাওয়াটাও সম্ভব হয়ে ওঠে না। চেনা সাজেই নিজেকে নতুন করে সাজিয়ে নিতে পারেন।

সময়টা যেহেতু বৃষ্টি আর ভাপসা গরমের দখলে, তাই সাজগোজ এবং পোশাক বাছাই করতে হবে একটু ভেবে চিন্তে। তাছাড়া সাজগোজে মানুষের রুচির বহিঃপ্রকাশ ঘটে, সে কথাটাও মাথায় রাখতে হবে।

হালকা সাজে স্নিগ্ধতা দিয়ে শুরু হোক ঈদের সকাল
ঈদের দিনের সকালটা শুরু হতে পারে হালকা ছিমছাম সাজের মধ্য দিয়ে। শাড়ি, সালোয়ার-কামিজ, ফতুয়া, জিন্স যেটাই হোক তার সঙ্গে ম্যাচিং করে চুড়ি, কানে এক পাথরের দুল বা টপতো পরাই যায়। পায়ে থাকতে পারে দুই ফিতার চটি স্যান্ডেল। সবার মধ্যেই খুশি খুশি ভাবটা থাকে, তাই সাজগোজেও থাকবে প্রাকৃতিক ভাব। ঈদের আনন্দে ধুয়েমুছে পরিষ্কার হয়ে যাবে চেহারায় লুকায়িত মলিনতা।

নিজেকে সতেজ আর আনন্দিত দেখানোর জন্য হালকা মেকআপই যথেষ্ট। মুখ পরিষ্কার করে হালকা বেইস নিতে পারেন। এরপর ফেস পাউডারের আলতো প্রলেপ দিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিতে পারেন।

 

নেইল পলিশ আর মেহেদি
ঈদের আগের রাতে নেইল পলিশ আর মেহেদি লাগানোর ঝামেলা মিটিয়ে রাখাটাই বুদ্ধিমানের কাজ হবে। এদিন ত্বকের যত্ন নিতেও ভোলা যাবে না। ভুল করা যাবে না হাত, পা, কনুই, ঘাড়ে, পিঠে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিতে। ঈদের দিন খসখসে ত্বকের বিড়ম্বনায় পড়তে না চাইলে আগের দিন এতটুকু সচেতনতা অবলম্বন করতেই হবে।

চোখের সাজ
চোখে শ্যাডো লাগানোর সঙ্গে হালকাভাবে হাইলাইট করা যায়, যা প্রায় বোঝা যাবে না। কিন্তু চোখ সুন্দর দেখাবে। চোখের কোনে চিকন করে কাজল লাগাতে পারেন। লাইনার লাগানো যায়, তবে সেটি পানিরোধক কি না খেয়াল রাখতে হবে। মাশকারা দিলে চোখের উজ্জ্বল ভাবটি ফুটে উঠবে। এরপর হালকা ব্লাসন লাগান। ব্লাসন হালকা হলে চেহারা আরো সতেজ দেখাবে।

ঠোঁট এবং চুলের সাজ
আপনার সাজে পূর্ণতা দেবে উজ্জ্বল রঙের লিপস্টিক। বৃষ্টিতে ম্যাট লিপস্টিক উপকার দেবে। কোনো দাওয়াতে গেলে গ্লসি লিপস্টিক ব্যবহার করতে পারেন। সব আয়োজন শেষে আপনার সৌন্দর্যের ফোকাস নির্ভর করবে চুলের ওপর। আপনার চুলের স্টাইল আকর্ষণীয় হলে ছেড়ে রাখতে পারেন নির্দ্বিধায়। তবে বিভিন্ন স্টাইলে চুলকে বেঁধে নিলেও আপনাকে অন্যরকম লুক দেবে। সালোয়ার-কামিজের সঙ্গে বিভিন্ন স্টাইলের বেণী করতে পারেন কিংবা চুল ছোট হলে ব্লো ড্রাই করে ছেড়ে রাখতে পারেন। শাড়ির সঙ্গে ব্লো ড্রাই করে রাখলে স্টাইলিশ লাগবে।

 

গহনার সাজ
ঈদের দিন পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে হালকা গহনাও পরতে পারেন। তবে ভারী গহনা এড়িয়ে চলায় ভালো। আপনার সুন্দর সাজের সঙ্গে মনের মাধুরি মিশানো হাসি দিয়েই শুরু করুন সারাদিনের কর্মসূচি। উপভোগ করুন ঈদের পুরো দিন। পরিবারের সব সদস্যের জন্য নিজেকে করে তুলুন আকর্ষণীয়। অতিথি আপ্যায়নে নিজেকে শামিল করুন দারুণ পারদর্শী হিসেবে।

সালোয়ার-কামিজে অন্য রকম
পাশ্চাত্যে চুলের সাজে মোহক লুক এখন বেশ জনপ্রিয়। সালোয়ার-কামিজের সঙ্গেও এটি চেষ্টা করে দেখা যেতে পারে। বাঁ দিকের চুল একটু পাফ করে এলোমেলোভাবে ছেড়ে দিন। তিনটি চিকন বেণি করে ডান দিকে রাখুন। চোখের সাজে রয়্যাল ব্লু আর কালোর মিশ্রণে একটা শেড আনা হয়েছে। ঠোঁটে উজ্জ্বল কমলা রঙের লিপস্টিকের ব্যবহার সাজে এনে দেবে উৎসবের ভাব।

হাতের ব্যাগ এবং জুতা
সাজ শেষে নজর দিতে হবে হাতের ব্যাগ এবং জুতার দিকে। এমন সাজে ক্ল্যাচ ব্যাগ সবচেয়ে মানিয়ে যায়। পাথর বসানো নকশাদার ব্যাগটি রাতের আলোয় আরো বেশি চমৎকার লাগবে। এদিকে পায়ের জুতাটি বেছে নিতে পারেন হাই হিলের মধ্যে। শাড়ি বা লেহেঙ্গায় উঁচু জুতার বিকল্প ভাবা যায় না। তবে আমাদের দেশেও পার্টি ড্রেসে হাইনেক বা হাই নী জুতার ব্যবহার বেড়েছে। এসব জুতায় আউটলুকে আনে আমূল পরিবর্তন। সবমিলিয়ে আপনাকে দেখাবে জমকালো। এবার মোহময় সুগন্ধী ছড়িয়ে আবিষ্কার করুন অন্য এক আপনাকে। কারণ সুগন্ধ মানুষের মনে পুলকিত প্রভাব ফেলে।

টিপস
ঈদের দিন নিজেকে বিশেষভাবে সাজাতে পরিকল্পনার অন্ত থাকে না। সবার মাঝে একটু বেশি স্টাইলিস আর নিজেকে নতুন আঙ্গিকে উপস্থাপন করা নিয়ে মাথার ভিতর ঘুর ঘুর করতে থাকে বিভিন্ন আয়োজন। কিন্তু সামান্য কিছু ভুলে সব পরিকল্পনা ভণ্ডুল হয়ে যেতে পারে।

সুন্দর দেখানোর প্রচেষ্টা পরিণত হতে পারে অসুন্দরে। তাই আপনার পরিকল্পনার সঙ্গে যদি কিছু বিশেষ টিপস যোগ হয় তাহলে ঈদের দিনের মেকআপ গেটআপে নতুন মাত্রা যোগ হবে সন্দেহ নেই। তেমন কিছু প্রয়োজনীয় টিপস দেওয়া হলো আপনারই জন্য।

Islami Bank