• ঢাকা
  • বুধবার, ১৬ অক্টোবর, ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬
প্রকাশিত: অক্টোবর ৯, ২০১৯, ০১:৩২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ৯, ২০১৯, ০১:৩২ পিএম

ভারত এখন কট্টর হিন্দুত্বের দখলে: অমর্ত্য সেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
ভারত এখন কট্টর হিন্দুত্বের দখলে: অমর্ত্য সেন

জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল এবং আসামের এনআরসিসহ বিভিন্ন ইস্যুতে ভারতের সাম্প্রতিক পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর তীব্র সমালোচনা করেছেন বিশ্ববরেণ্য নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেন। 

মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) মার্কিন গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি সরাসরি ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, ‘বহু ধর্ম ও অসংখ্য জাতির দেশ ভারতকে বোঝার মতো ক্ষমতা এখনো মোদীর হয়নি।’

অনেকটা আক্ষেপের সুরে অমর্ত্য সেন বলেন, ‘ভারতে এখন কট্টর হিন্দুত্বের দাপট চলছে। এখন দেশটিকে কেবল তাদের দখলেই আরও অনেকটা সময় থাকতে হবে। আমরা জন স্টুয়ার্ড মিলের কাছ থেকে এরই মধ্যে বড় একটি বিষয় জেনেছি। তা হল, দেশে গণতন্ত্র মানে আলোচনার ভিত্তিতে চলা সরকার। ভোট যেভাবেই গোনা হোক না কেন, আলোচনাকে ভয়ের বস্তু বানিয়ে ফেললে তুমি কখনোই গণতন্ত্র পাবে না।’

অর্থনীতিতে নোবেলজয়ী এই ব্যক্তিত্ব আরও বলেন, ‘বর্তমানে লোকজন এক রকম আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন। যা আগে কখনই আমরা দেখিনি। আমার সঙ্গে টেলিফোনেও সরকারের সমালোচনার প্রসঙ্গ উঠলে অনেকেই বলছেন- থাক ভাই, দেখা হলে বলব। আমি নিশ্চিত উপর থেকে আমাদের কথা শোনা হচ্ছে।’

অমর্ত্য সেন আরও বলেন, ‘এটা কখনোই গণতন্ত্রের পথ নয়। দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ লোকজন ঠিক কী চায়, সেটা বোঝারও পথ এটা না। প্রধানমন্ত্রী মোদী একজন সপ্রতিভ এবং সফল রাজনীতিবিদ। যদিও আশৈশব থেকেই তিনি কেবল আরএসএসের প্রোপাগান্ডায় বিশ্বাসী। যে কারণে দেশের এখন এমন অবস্থা।’

নরেন্দ্র মোদীর সর্ব বৃহৎ সাফল্য সম্পর্কে বলতে গিয়ে নোবেলজয়ী এই অর্থনীতিবিদ বলেন, ‘গুজরাটে গোধরা মামলা থেকে নিজেকে মুক্ত করাই এখন পর্যন্ত মোদীর সবচেয়ে বড় সাফল্য। আমি আপনাদের মনে করিয়ে দিতে চাই, ২০০২ সালে যে ঘটনায় হাজারেরও অধিক লোক নিহত হয়েছিলেন, মূলত এর পেছনে নরেন্দ্র মোদীর বড় একটা ভূমিকা ছিল- যদিও ভারতে অনেক লোক এখনো তা বিশ্বাসই করেন না।’

এসকে

আরও পড়ুন

Islami Bank