• ঢাকা
  • শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর, ২০১৯, ৩ কার্তিক ১৪২৬
প্রকাশিত: অক্টোবর ৬, ২০১৯, ০৫:৩২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : অক্টোবর ৬, ২০১৯, ০৫:৩২ পিএম

মোহাম্মদ নাদিমের কবিতা

.
মোহাম্মদ নাদিমের কবিতা


আমার কোন গ্রাম নেই

আমার জন্ম এক গ্রামে
তবু আমার কোন গ্রাম নেই!
জন্মেছিলাম যে গ্রামে
আসলে সেটি ছিল আমার মায়ের;
নাড়ি পোতা সেই সবুজ ভূখন্ড
ছেলেবেলায় সেই ছিল আমার
প্রথম প্রেম,
বেড়ে ওঠার সাথে সাথে বুঝেছি
আমার কোন গ্রাম নেই।
আজন্ম শহুরে আমি


এই হাতের রেখায় নগরের অলি-গলি
বুকজুড়ে তবু এলায়িত মেঠোপথ
মাথার ভেতরে খেলা করে
কোকিলের কুহুতান
ধমনিতে পদ্মা-যমুনার গর্জন।
আমার কোন গ্রাম নেই,
বৈষয়িক এই শহরে বিত্ত-বৈভবের খোঁজে
ছোটে এক দল-
রূপের প্রদীপ ঘিরে পতঙ্গ কেউ কেউ
কেউ বা খ্যাতি-যশের কাঙাল,
ওসবে লোভ নেই- 
সুজলা-সুফলা শস্য-শ্যামলা
একটি গ্রাম চাই-
শহরটাকে  পাল্টে দিতে!

যৌথ খামার

এই হাত ছুঁয়েছিল একদিন
আকাশের সঘন নীল
সূর্যের সিঁদুর ছুঁয়ে
পৃথিবীর বুকে এঁকেছিল
রক্তিম আল্পনা! 
এই হাত ছুঁয়েছিল একদিন


মিছিলে মিছিলে 
শ্লোগানের তাল-লয়
চেয়েছিল মানুষের পিঠে গেঁথে দিতে 
সাম্যের স্বপ্নডানা
এই হাত ছুঁয়েছিল একদিন
তোমার সলাজ মুখ সবুজ শাড়ি
আল ওঠা ধানের জমিন 
সেই বৈশাখে আলো ছড়াল-
সেই আলো গলে গলে
টিপ হল তোমার কপালে; 
এত ঝড়-ঝঞ্ঝা সয়ে 
আজও যা ভাস্বর
যৌথ খামারে।
 

Islami Bank