• ঢাকা
  • রবিবার, ১২ জুলাই, ২০২০, ২৮ আষাঢ় ১৪২৭
প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২০, ০৪:১২ পিএম
সর্বশেষ আপডেট : ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২০, ০৪:১২ পিএম

চেলসিকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লীগের আশায় ম্যানইউ

ক্রীড়া ডেস্ক
চেলসিকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লীগের আশায় ম্যানইউ
চেলসির হতাশার রাতে জয়োল্লাসে মাতে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ফটো : টুইটার

আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খেলার আশা টিকিয়ে রাখার ক্ষেত্রে দুই দলের জন্যই ম্যাচটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ ছিল। পয়েন্ট টেবিলে সুবিধাজনক অবস্থানে থাকা চেলসি ভিএআর কাণ্ডের শিকার হয়ে ঘরের মাঠে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কাছে ২-০ গোলে হেরে অস্বস্তিতে পড়েছে। অপরদিকে, জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ায় চ্যাম্পিয়নস লীগের আশা বাঁচিয়ে রেখেছে রেড ডেভিলরা।

সোমবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে অনুষ্ঠিত ম্যাচটি ভিএআর বিতর্কের জন্যই এখন বেশি আলোচিত হচ্ছে। চেলসি কোচ ফ্রাংক ল্যাম্পার্ড সরাসরি অভিযোগ করে বসেছেন, ব্লুদের জয় নাকি ছিনতাই করা হয়েছে।

প্রথমার্ধে বেলজিয়ামের ফরোয়ার্ড মিচি বাতসুয়াই টেনে ফেলে দিয়েছিলেন হ্যারি ম্যাগুইর। অথচ রেফারি ভিএআরের সাহায্য নিয়েও সবাইকে অবাক করে দিয়ে ম্যাগুইরকে লাল কার্ড দেখানোর প্রয়োজনই মনে করেননি। 

ম্যাচের ৪৫ মিনিটে অ্যারন ওয়ান-বিসাকার ক্রসে বল পেয়ে অ্যান্থনি মার্শিয়াল হেডে গোল করে ম্যানইউকে এগিয়ে রাখেন। 

বিরতির পর ৫৫ মিনিটের মাথায় কোর্ট জুমা গোল করে চেলসিকে সমতায় এনেই দিয়েছিলেন। কিন্তু ভিএআরে ধরা পড়ে, সিজার আজপিলিকুয়েতা গোলের আগ মুহূর্তে  ফ্রেডকে ধাক্কা দেন। ফলে গোলটি বাতিল হয়ে যায়। 

৬৬ মিনিটে ব্রুনো ফার্নান্দেজের কর্নার কিক থেকে বল নিয়ে ১৫ গজ দূর থেকে লাফিয়ে লাল কার্ডের হাত থেকে রক্ষা পাওয়া ম্যাগুইর লক্ষ্যভেদ করে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন। খেলার ৭৭ মিনিটে অলিভার জিরুড গোল করলেও ভিএআরের অফসাইড ধরা পড়ায় তা বাতিল হয়ে যায়।  

লাইসেন্স সংশ্লিষ্ট ও ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়ম ভঙ্গের দায়ে ইউরোপীয় ক্লাব ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা উয়েফার (দ্য ইউনিয়ন অব ইউরোপিয়ান ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন) ইংলিশ জায়ান্ট ম্যানচেস্টার সিটিকে দুই বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটাতে না পারলে প্রথম ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের চলতি মৌসুম শেষে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ চারের বদলে পঞ্চম দলটিরও খেলার সুযোগ পাবে।  ২৬ ম্যাচে ৪১ পয়েন্ট নিয়ে চেলসি আছে চার নম্বরে। ম্যানইউর বিপক্ষে হারে এখন তাদের ধরাছোঁয়ার মধ্যে চলে এসেছে। ৪০ ও ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচ ও ছয়ে আছে টটেনহ্যাম হটস্পার ও শেফিল্ড ইউনাইটেড। ৩৮ পয়েন্ট নিয়ে সাতে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।   

২৫ জয় ও ১ ড্রয়ে ৭৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে লিভারপুল। এক ম্যাচ কম খেলে ৫১ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে ম্যানচেস্টার সিটি। ২৬ ম্যাচে ৫০ পয়েন্ট নিয়ে লেস্টার সিটি আছে তিনে।

আরআইএস 
 

আরও পড়ুন